জসীমউদ্দীনকে 'পল্লীকবি' বলা হয় কেনো?

 (8683 পয়েন্ট)

জিজ্ঞাসার সময়

2 Answers

 (803 পয়েন্ট) 

উত্তরের সময় 

জসীম উদ্দীনকে পল্লী কবি বলা হয়।এর একমাত্র কারন হলো তিনি গ্রাম বাংলার মানুষের সুখ দুখ আশা ভরসা গ্রাম বাংলার মানুষের জীবন কাহিনা তার কবিতায় প্রকাশ পায়।এজন্য জসীম উদ্দীনকে পল্লীকবি বলা হয়।
 (2137 পয়েন্ট) 

উত্তরের সময় 

তাকে পল্লীকবি বলার কারণগুলো হলো: ১. তার সাহিত্যের ভাষায় প্রকাশ পায় যে, ভাষা গ্রামের মানুষের মত কিন্তু গ্রাম্য নয়। ২.তার লেখায় গ্রামীণ সংস্কৃতির গভীর এবং প্রকৃত রূপ ফুটে উঠেছে। ৩. তাঁর কবিতার অলংকার বা উপমা, রূপক গ্রামের মানুষের মনস্তত্ত্বের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ। যেমন- লাল মোড়গের পাখার মত উড়ে তাহার শাড়ি। জসীমউদ্দীন বাংলা কবিতায় একাই পল্লী নিয়ে কবিতা লিখেছেন তা নয় বরং কুমুদরঞ্জন মল্লীক, বন্দে আলী মিয়াঁ, যতীন্দ্র মোহন বাগচী পল্লী নিয়ে কবিতা লিখেছেন। কিন্তু তাদের কবিতা যেন ট্রেনের জানালা দিয়ে দেখা পল্লী। একমাত্র জসীমউদ্দীনের কবিতায় পল্লীর প্রকৃত চিত্র, প্রকৃত স্বাদ পাওয়া যায়। এ কারনে তাকে পল্লী কবি বলা হয়। তাঁর রচিত অধিকাংশ সাহিত্যের পটভূমি গ্রাম ও গ্রামীন জীবন । পল্লী জীবনের নানা অস্ফুট চিত্রও তার কবিতায় অতি যত্নের সাথে চিত্রিত হয়েছে। পল্লীর মানুষের জীবনাচার তাঁর কবিতায় স্থান পেয়েছে। সহজ- সরল মানুষের সুখ-দু:খ, আনন্দ- বেদনার অনুভূতি অতি দরদ দিয়ে কবি তাঁর কবিতায় চিত্রিত করেছেন । তাই তাঁকে পল্লীকবি বলেন। .তথ্যসূত্র:Zakir's BCS specials ( Facebook)
সম্পর্কিত প্রশ্নসমূহ

Loading...

জনপ্রিয় বিভাগসমূহ

Loading...