পৃথিবীর সেই ব‍্যক্তি কি সবচেয়ে দুঃখী মানুষ, যার মা-বাবা বেঁচে নেই? আর পৃথিবীর সেই ব‍্যক্তি কি সবচেয়ে সুখী মানুষ, যার মা-বাবা বেঁচে রয়েছে?

পৃথিবীর সেই ব‍্যক্তি কি সবচেয়ে দুঃখী মানুষ, যার মা-বাবা বেঁচে নেই? আর পৃথিবীর সেই ব‍্যক্তি কি সবচেয়ে সুখী মানুষ, যার মা-বাবা বেঁচে রয়েছে?
বিভাগ: 
Share

3 টি উত্তর

সপচে দুখি মানুষ সেই যার সব কিছু আছে।আর সবচে সুখি মানুষ সে,যার কেও নেই।কারন আল্লাহ তার সাথে আছেন।
আসলে পৃথিবীর সবচেয়ে দুঃখী এবং সুখী মানুষ বাবা মার বেঁচে থাকা কিংবা মৃত্যুবরণের হিসেবে পরিমাপ করা যায়না। এই কঠিন জগৎ সংসারের নানা প্রতিকূলতার মাঝেও যদি আপনার মন বলে আপনি সুখী, তাহলেই আপনি সুখী, নতুবা নয়! বাবা মার স্নেহ মমতার পরশ সন্তানের জন্য আল্লাহর স্রেষ্ট নিয়ামত! কিন্তু বাবা-মা নেই বলে নিজেকে দুনিয়ার সবচেয়ে দুঃখী মানুষ মনে করা যুক্তিসংগত নয়, কারণ আপনার বাবা মাকে যিনি আপনার চেয়েও বেশি ভালোবাসেন তিনি আপনার সৃষ্টিকর্তা। সেই সৃষ্টিকর্তা আপনার বাবা মার চেয়েও আপনাকে অসীম দয়া করেন, রহমত বর্ষণ করেন। তাই আপনার বাবা মা নেই বলে আপনি কখনো পৃথিবীর সবচেয়ে দুঃখী মানুষ নন! কারণ আল্লার রহমত সবসময় আপনার সাথে আছে।
যার মা আছে সে কখনই গরীব নয়। - আব্রাহাম লিংকন। সুখ দুঃখ আল্লাহ তায়ালার দান। তবে ঘরে মা থাকলে সেই সুখ আরও বেশি সুখ মনে হয়। আবার মা না থাকলে সুখে থেকেও কেমন যেন অপূর্ণতা অপূর্ণতা লাগে। আর দুঃখে থাকলে মায়ের কথা আরও বেশি মনে পড়ে। আসলে মা হচ্ছে একটা স্নেহ ভান্ডার, যার কাছে গেলে আমরা সকল দুঃখ ভুলে যাই। যার বাবা মা বেঁচে আছে সে অবশ্যই বেশি সুখি।

সাম্প্রতিক প্রশ্নসমূহ