6 টি উত্তর
হ্যা অতিরিক্ত ব্যবহার করলে চোখের সমস্যা হতে পারে। তবে একনাগারে ৩ ঘন্টার বেশী ফোন ব্যবহারে করা ঠিক না। আর ফোনের ব্রাইট কম করে দিতে হবে এবং চোখের কাছে থেকে ব্যবহার করা যাবেনা।
হ্যাঁ হবে যদি আপনি প্রচুর পরিমান মোবাইল নিয়ে ব্যস্ত থাকেন যদি আপনি পর্দার উজ্জলতা না কমিয়ে বেশ কিছুক্ষণ মোবাইলের দিকে তাকিয়ে থাকেন তাহলে আপনার সমস্যা হতে পারে!

একটানা মোবাইলের স্ক্রিনে তাকিয়ে মোবাইল ঘেটলে চোখের দৃষ্টি কমে যায় ও ব্রেনের সমস‍্যা হয় ।তাই বেশি মোবাঈল ব‍্যবহার করা উচিত নয়।

যুক্তরাজ্যের চক্ষু বিশেষজ্ঞরা সতর্ক করে জানিয়েছেন, মুঠোফোনের অতিরিক্ত ব্যবহারে দৃষ্টি বৈকল্য সৃষ্টি হতে পারে। এতে করে মায়োপিয়া বা ক্ষীণ দৃষ্টির সমস্যা দেখা দিতে পারে। স্মার্টফোন ব্যবহারকারীরা সাধারণত চোখ থেকে ৩০ সেন্টিমিটার দূরত্ব রেখে তা ব্যবহার করেন। তবে, অনেকের ক্ষেত্রে এ দূরত্ব মাত্র ১৮ সেন্টিমিটার। সংবাদপত্র, বই বা কোনো কিছু পড়ার ক্ষেত্রে সাধারণত চোখ থেকে গড়ে ৪০ সেন্টিমিটার দূরত্ব থাকে। চোখের খুব কাছে রেখে অতিরিক্ত সময় ধরে স্মার্টফোন ব্যবহার করলে জিনগত সমস্যা দেখা দিতে পারে। ক্ষীণদৃষ্টি সৃষ্টির জন্য যা ভূমিকা রাখতে সক্ষম। গবেষকেরা একে ‘এপিজেনেটিকস’ সংক্রান্ত বিষয় বলেন। গবেষকেরা দীর্ঘক্ষণ ধরে স্মার্টফোনে চোখ না রাখতে পরামর্শ দিয়েছেন। দৈনিক কিছু সময় মোবাইল ফোন থেকে দূরে থাকার পরামর্শ দেন তাঁরা। স্মার্টফোন ব্যবহারের ক্ষেত্রে বয়স বিবেচনার বিষয়টিকেও গুরুত্ব দিয়েছেন যুক্তরাজ্যের গবেষকেরা।

হ্যা হয়। তা হল:- 

  1. চোখের:- মোবাইল কম্পিউটার ল্যাপটপ টিভি হতে আল্ট্রাভায়োলেট  রশ্মি বের  হয়। যা  ঘুমের হরমোন নিঃসৃত হতে বাধা দেয়।
  2. আবার কর্ণিয়ার প্রদাহ হয়। যা চোখে ব্যাথার কারন। চোখ হতে পানি পড়ার জন্য দায়ি।
হ্যা চোখের সমস্যা হয়। মোবাইল ব্যবহারের সময় ব্রাইটনেস কমিয়ে রাখুন।