মরে গেলে কী সব ঠিক হয়ে যাবে.?

মরে গেলে কী সব ঠিক হয়ে যাবে.?পড়তে বসলে বলছি আজ না আগামী কাল ভোরে পড়বো ভোরে বলছি এখন না রাতে পড়বো এই ভাবে আমার সময় চলেই যাচ্ছে কিন্ত কিছু পড়া হচ্ছে না। আমি কোন ভাবে নিজের ইচ্ছা শক্তিকে ধরে রাখতে পারছি না
বিভাগ: 
Share

3 টি উত্তর

সর্বপ্রথম দেখবেন কোন জিনিসটি আপনাকে পিছু টানছে।কি কারনে আপনি পড়তে গেলে পড়ার টেবিল থেকে উঠে যান।এগুলোর সমস্যা সমাধান করে ফেলুন।এরপর আপনার জীবনের একটি লক্ষ্য স্থীর করে ফেলুন যে আপনি কি পড়ালেখা করে বড় কোনো চাকরি করতে চান।তাহলে সেই উদ্দেশ্য নিয়ে পড়ালেখা চালিয়ে যান।সবশেষে ইচ্ছা থাকলে সবকিছুই করা সম্ভব।আশা করি এরকম সমস্যায় আর পরবেননা।

মড়ে গেলে তো কখনোই এই সমস্যার সমাধনান হবেনা। অনেকেরই এরকম ইচ্ছা শক্তি সাইলেন্ট হয়ে থাকে শুধু মাত্র ধৈর্যের অভাবে। আপনাকে আমি আমার নিজের অভিজ্ঞতা থেকে বলছি, আপনি একটু ধৈর্য ধরুন। রাতে পড়ার ইচ্ছা পোষন করুন। দুপুরে নামাজ পড়ে খাওয়া দাওয়া করে হালকা ঘুমান। বিকেলে একটু খোলামেলা বাতাসে হাটুন/খেলাধুলা করুন। এবার একটু সিরিয়াস হয়ে সন্ধ্যায় নামাজ পড়ে বই নিয়ে বসুন। আশা করি মনোযোগ কাজ করবে। আর বেশি মনোযোগেরর জন্য আপাতত সারাদিন গানশুনা বন্ধ রাখুন। আমার বিশ্বাস ইনশাল্লাহ ফল পাবেন।

এটার সমাধান কখনোও মৃত্যু হতে পারে না। আপনি আজ এখন থেকেই পড়ালেখা শুরু করুন।পড়ালেখায় বাধা সৃষ্টি করে যেমন মোবাইল ব্যবহার বন্ধ করে দিন।কারণ পড়তে বসলে এসবের কথা মনে পড়ে।প্রয়োজনে মোবাইল চালানোর সময়টা বন্ধুদের সাথে,গল্প বা কাজের মধ্যে কাটান। একাধারে না পড়ে ২৫ মিনিট পড়ে ৫ মিনিট বিরতি,১ ঘন্টায় ১০ মিনিট এভাবে পড়ুন।পড়ালেখায় যেভাবে মজা লাগে সেভাবে পড়ুন। কাল,পরশু না করে আজ থেকেই রুটিন করে পড়ালেখায় মনোযোগ দিন। আশাকরি বুঝতে পেরেছেন।

সাম্প্রতিক প্রশ্নসমূহ