আমাদের স্কুলে বয়স ১৬ বছর । এর মধ্যে এসএসসিতে কেউ এ প্লাস পায়নি।কিন্তু আমি এ প্লাস পেতে চাই?
3 টি উত্তর
সম্ভবত আপনার স্কুলের শিক্ষাব্যবস্থা এতোটা উন্নত না। তাই ছাত্র-ছাত্রীদের থেকেও ভালো ফল আসছেনা।। এক্ষেত্রে আপনার ইচ্ছা বা চেষ্টা কে আমি স্বাগত জানাই। নিজে ভালোভাবে পড়ালেখা করুন,স্কুলের সেরা স্যার হতে পরামর্শ নিন। বেশি বেশি করে পড়ুন, সাজেশন ফলো করেন,বিগত বছরগুলোর প্রশ্নগুলো আয়ত্তে নিয়ে আসুন। আশা করি সফল হবেন।
পরীক্ষার খাতায় লেখার উপরেই নির্ভর করেই মান যাচাই করা হয়। মেধাবী হওয়া সত্ত্বেও পরীক্ষার খাতায় সঠিকভাবে উপস্থাপনার অভাবে কম নম্বর পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। নিচে পরীক্ষায় ভাল করার জন্য কিছু নিয়ম আলোচনা করা হলো । পরীক্ষার আগের রাতের পড়া পরীক্ষার আগের দিন রাতে খুব বেশি রাত করে পড়ালেখা করা উচিত্ না। নতুন কোন টপিক শুরু না করে পূবের্র পড়াগুলো অধ্যয়ন করা উচিত্। অনেক রাত জেগে পড়ার কারনে পরীক্ষার সময় ক্লান্তি অনুভব হতে পারে এবং স্বরণ শক্তি হরাস পেতে পারে। পরীক্ষার প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম সংগ্রহ ও মনে করে পরীক্ষার কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া পরীক্ষার প্রয়োজনীয় কলম, পেন্সিল, সাইন পেন, স্ক্যাল, ক্যালকুলেটর, প্রবেশপত্র, রেজিস্ট্রেশন কার্ড সহ অনুমোদিত অন্যান্য সরঞ্জাম মনে করে নিয়ে যেতে হবে। অতিরিক্ত কলম নিয়ে ইত্যাদি নিয়ে যাওয়া উচিত। এতে একটি সমস্যা হলে অন্যটি দিয়ে কাজ করা যাবে। প্রয়োজনে সরঞ্জামগুলো পরীক্ষা করে, দেখে পরীক্ষা কেন্দ্রে নিয়ে যেতে হবে। সঠিক সময়ে উপস্থিত হওয়া পরীক্ষার ২০-২৫ মিনিট কেন্দ্রে আসা উচিত্, আর পরীক্ষা কেন্দ্র দূরে হলে আরও কিছু বাড়তি সময় নিয়ে আসতে হবে, পথে কোন সমস্যা (জানজট ইত্যাদি) হলে যাতে সমস্যা না হয়। খাতায় মার্জিন টানা খাতা দেয়ার পর এবং প্রশ্ন পাওয়ার পূবের্র সময়টাতে কিছু কাজ করতে হয়। খাতা সুন্দর করে মার্জিন টানতে হবে। পেন্সিল দিয়ে মার্জিন টানা ভালো। খাতায় ভাজ করে কোন দাগ না দিয়েও মার্জিন চিহ্নিত করা যায়। অনেকে খাতায় পৃষ্ঠানম্বর যুক্তও করে। উপরের নিয়মগুলো অনুসরন করে ভালো রেজাল্ট করতে পারবেন।
এসএসসি পরিক্ষায় এ প্লাস পেতে হলে বাংলা ও ইংরেজিতে দক্ষ হতে হবে। এই দক্ষতা অর্জনের জন্য গ্রামারের প্রতি লক্ষ রাখতে হবে। একজন ভাল শিক্ষকের পরামর্শ নিতে হবে এবং নিয়মিত চর্চা চালিয়ে যেতে হবে। নির্ভুল বানান, সুন্দর ও ঝকঝকে খাতা উচ্চনম্বরের নিশ্চয়তা দেয়। “১০০ বার অমনোযোগী হয়ে পড়ার চেয়ে ১ বার বুঝে পড়া উত্তম আর ৩০ বার বুঝে পড়ার চেয়ে ১ বার লিখা উত্তম। এটা মনে রাখবেন। আর হুম বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থায় এ প্লাস পেতে হলে প্রতিটি বিষয়ে সমান ভাবে দক্ষ হতে হবেই।তাই কেবল ইংরেজি ও অংক বিষয়ে বেশি সময় দিতে গিয়ে অন্যান্য বিষয়ের কথা ভুলে কিন্তু যাবেন না।