লাই-ফাই প্রযুক্তি কিভাবে কাজ করে?
 (26640 পয়েন্ট) 

জিজ্ঞাসার সময়

1 Answers

 (2826 পয়েন্ট) 

উত্তরের সময় 



মাত্র এক সেকেন্ডেই ডাউনলোড হবে পুরো সিনেমা!

মাত্র ১ সেকেন্ডে ডাউনলোড হয়ে যাবে একটা গোটা সিনেমা! কথাটা শুনতেই আপনি ভাবতে শুরু করেছেন ডেটা স্পিড যখন ফোর-জি, ফাইভ-জি, সিক্স-জি ইত্যাদি। কিন্তু ব্যাপারটা একেবারেই তা নয়। 

Wi-Fi এর কথা প্রযুক্তি বিশ্বের সকলেই জানা। এই ওয়াই-ফাইকে সরিয়ে অদূর ভবিষ্যতে আসছে লাই-ফাই। বলতে পারেন ওয়াই-ফাইয়ের সুপার-ফাস্ট বিকল্প। পরিকল্পনার স্তরে নয়, ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষিত এবং প্রমাণিত। একটা পূর্ণদৈর্ঘ্য সিনেমা ডাউনলোড হয়ে যাবে সেকেন্ডে। স্পিড ১ GBps। হিসেব কষলে দেখা যাবে, বর্তমান ওয়াই-ফাই প্রযুক্তির চাইতে ১০০ গুণ দ্রুততর।

লাই-ফাই হলো বিশেষ ধরনের একটি আলো। যা থেকে নির্গত রশ্মির মধ্য দিয়েই তথ্য যায় বাতাসে ভর করে। ফাইবার অপটিক নেটওয়ার্কে এই আলোকে কাজে লাগিয়েই ডেটা পাঠানো হয়ে থাকে।

Li-Fi-এর আবিষ্কারক অধ্যাপক হ্যারল্ড হাস। এডিনবর্গ ইউনিভার্সিটির এই অধ্যাপক ২০১১ সালেই এই প্রযুক্তি আবিষ্কার করেন। তিনি দেখিয়েছেন কীভাবে সিঙ্গেল লেডের মাধ্যমে সেলুলার টাওয়ারের থেকে বেশি ডেটা দ্রুত পাঠানো যায়।

এতদিন পরীক্ষামূলকভাবে এয়ারলাইন্সে এই প্রযুক্তি কাজে লাগানো হচ্ছিল। ইন-ফ্লাইট যোগাযোগ রাখা হচ্ছিল লাই-ফাইকে কাজে লাগিয়ে। এমনকী গোয়েন্দারাও তা ব্যবহার করেছেন

Recent Questions
Loading interface...
Trending Tags
Loading interface...