আজ আমি আমর স্ত্রী ও  আমার মেয়ে ( বয়স ৬ মাস ৬ দিন) বিকালে একটু অটোতে চরে ঘুরাফেরা করি। রাস্তায় ভিবিন্ন জায়গা নেমে আমরা কিছু ছবিও তুলি। আজ বিকালে প্রচন্ড গরম ছিলো। অটোতে বসা অবস্থাই ঘা ঘেমে যাবার মত অবস্থা। যাইহোক  ঘুরাঘুরির এক পর্যায়ে আমরা একটা জায়গায় বসি। ওখানে কান্না করাতে বাসা থেকে বানিয়ে নিয়ে যাওয়া সেরোলাক্স খাওয়াই। তার পর সন্ধার দিকে আমরা বাসায় চলে আছি। বাসায় আসার পর মেয়ে আবার খেয়ে গুমিয়ে পরে। প্রায় ১ ঘন্টা ঘুমানোর পর মেয়ে জেগে ওঠে।  জেগে ওঠার পর মেয়ে কান্না শুরু করে দেয়। খাবার দিতে চাইলে খাবারও নিচ্ছে না। জোর করে একটু বুকের দুধ খাওনোর সাথে সাথে বমি করে দিচ্ছে। এবং অনেক খানি বমি করছে। এখন ঘুমও আসতে চাচ্ছে না। আগে কখনো আমার মেয়ে এরকম কাদে নি। এ রকম বমিও করে নি। শোয়ানো একটু পর পরই ঘুম আসতো। কিন্তু আজ এমন হচ্ছে কেন? প্লিজ একটু বলবেন। আমার সব কথা আমি বলে দিলাম। খুব টেনশন হচ্ছে।  খুব ভয়ও হচ্ছে। একটু দ্রুত পরামর্শ চাই

anon
জিজ্ঞাসা করেছেন
মন্তব্য সমূহ
joy20209

gastric problem হতে পারে ভাইয়া.......

1 টি উত্তর
দিয়েছেন

আসলে এই ছোট বাচ্ছাকে বাহিরে নেওয়া উচিৎ করেন নি। তবে আপনি একজন হুজুরের কাছে নিয়ে যান বাচ্ছাকে ঝারে নিন । অর্থৎ ফুকে নিন। হয়তো আপনার বাচ্ছা কোন কিছু দেখে হতাস হয়েছে বা চমকে গেছে । তবে হুজুরের কাছে যেতে না চাইলে বা না পারলে আপনি নিজেই করতে পারেন যদি আপনি মুসলিম হোন ৫ ওয়াক্ত নামাযী হোন  তাহলে আপনি সুরাহ ফাতিহা এক বার ও  ৪ কুল ছুড়া গুলো ৩ বার করে পরবেন তবে সুরাহ কাফীরুন ১ বার বল্লেও হবে।এর পর আয়াতুল কুরসি ও সুরাহ হাশরের লাস্ট ৩ আয়াত পরে আপনার মেয়ের মাথায় ফু দেন। আসা করি মেয়ের কান্না কমে যাবে। অন্যথায় হুজুরের কাছে যান। 

Download Bissoy Answers App Bissoy Answers