মুচমুচে লইট্টা ভাজি কিভাবে তৈরী করতে হয়?
বিভাগ:
1 টি উত্তর
উপকরণ : লইট্টা মাছ (বেছে ধুয়ে পানি নিংড়ে নেওয়া) ২৭৫ গ্রাম, আদা বাটা ১ চা-চামচ, রসুন বাটা ১ চা-চামচ, পেঁয়াজ বাটা ১ চা-চামচ, হলুদ গুঁড়া আধা চা-চামচ, লাল মরিচ গুঁড়া ৩ চা-চামচ, ভাজা ধনে গুঁড়া আধা চা-চামচ, ভাজা জিরা গুঁড়া আধা চা-চামচ, লবণ আধা চা-চামচ, গোলমরিচ গুঁড়া আধা চা-চামচ, ময়দা আধা কাপ, তেল ভাজার জন্য। প্রণালি : মাছ ধুয়ে পানি নিংড়ে নিয়ে তেল, ময়দা, ১ চা-চামচ লাল মরিচের গুঁড়া এবং আধা চা-চামচ লবণ বাদে বাকি অন্য সব উপকরণ দিয়ে মেখে ফ্রিজে ঘণ্টা দুয়েক রেখে দিন। একটি কাগজের প্যাকেটে বা প্লাস্টিকের প্যাকেটে ময়দা এবং বাকি লবণ ও মরিচের গুঁড়া মিশিয়ে রাখুন। মাছ ভাজার আগে ফ্রিজ থেকে বের করে ময়দার প্যাকেটে ভরে ভালো করে ঝাঁকিয়ে নিন। কড়াইয়ে তেল গরম করে প্যাকেট থেকে মাছগুলো বের করে ব্যাটারে গড়িয়ে লাল লাল মুচমুচে করে ভেজে উঠিয়ে নিন। সসের সঙ্গে গরম গরম পরিবেশন করুন। ব্যাটারের জন্য—উপকরণ : ময়দা এক কাপের চার ভাগের তিন ভাগ, চালের গুঁড়া এক কাপের চার ভাগের তিন ভাগ, খাওয়ার সোডা সিকি চা-চামচ, লবণ আধা চা-চামচ, কাঁচা মরিচ কুচি ৫টি, রসুন বাটা ১ চা-চামচ, গোলমরিচ গুঁড়া সিকি চা-চামচ, লেবুর রস আধা টেবিল চামচ, সিজনিং সস ১ টেবিল চামচ, গরম তেল আড়াই টেবিল চামচ, পানি ১ থেকে দেড় কাপ। প্রণালি : বাটিতে ময়দা, খাওয়ার সোডা, গোলমরিচ গুঁড়া, চালের গুঁড়া, লবণ একত্রে মিশিয়ে নিন। এবার বাকি অন্য উপকরণগুলো দিয়ে প্রথমে ১ কাপ পানি দিয়ে মেখে পরে বাকি আধা কাপ পানি দিয়ে মিশিয়ে ফেটে মসৃণ ব্যাটার তৈরি করুন। তারপর গরম তেল মিশিয়ে আরও কিছুক্ষণ ফেটে নিয়ে এতে মাছ গড়িয়ে ভেজে নিন।