nudism সম্পর্কে জেনে আমি অত্যন্ত হতবাক এবং হতাশ হয়ে গেছি। কুরআন ও হাদিসের আলোকে আখেরাতে এদের চরম পরিণতি সম্পর্কে বিস্তারিত জানান প্লিজ?
1 টি উত্তর
নগ্নতাবাদ বা প্রকৃতিবাদ হচ্ছে এক ধরনের সামাজিক নগ্নতার ব্যক্তিগত ও জনপ্রকাশ্যরূপ লাভের উদ্দেশ্য এক প্রকার সাংস্কৃতিক ও রাজনৈতিক আন্দোলন। এটি প্রাত্যাহিক বা ব্যক্তিগত, পারিবারিক বা সামাজিক জীবনের ক্ষেত্রে নগ্নতার ব্যবহারকে সংজ্ঞায়িত করতেও ব্যবহৃত হতে পারে। মহান আল্লাহ সর্বোতভাবে অশ্লীলতাকে হারাম ঘোষণা করে বলেছেন, “আপনি বলুন, নিশ্চয় আমার রব সকল প্রকাশ্য ও গোপন অশ্লীলতা হারাম করেছেন।” তিনি অন্যত্র বলেছেন, “প্রকাশ্যে হোক কিংবা গোপনে হোক, অশ্লীল কাজের নিকটেও যেও না।” -সূরা আনআ’ম ১৫১ মহানবী (সা.) বলেছেন, “লজ্জাশীলতা ঈমানের একটি শাখা।” -সহীহ বুখারী ও মুসলিম ফলে অশ্লীল কর্ম সমাজে ছড়িয়ে দেয়াও মারাত্মক অপরাধ। আল্লাহ বলেন, “যারা পছন্দ করে যে, ঈমানদারদের মধ্যে অশ্লীলতার প্রসার লাভ করুক তাদের জন্যে ইহকাল ও পরকালে যন্ত্রণাদায়ক শাস্তি রয়েছে। আল্লাহ জানে, তোমরা জান না" -সূরা নূর: ১৯ রাসূলুল্লাহ সা. সব ধরণের অশ্লীল কাজকে নিষেধ করে বলেন, “অশ্লীলতা এবং অশ্লীলতার প্রসার কোনটির স্থান ইসলামে নেই। নিশ্চয় ইসলামে সর্বোত্তম মানুষ হচ্ছে যার স্বভাব-চরিত্র সবার চাইতে সুন্দর" পরকালীন জীবনে অশ্লিলতার পরিণতি অনেক ভয়াবহ। এমন কি এটি মানুষকে দুনিয়াতেই ঈমান হারা করে ফলে সে জাহান্নামী হয়ে যায়। ধন্যবাদ।