কেমনে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাবো? মা বাবার সাথে ঝগড়া করি প্রতিদিন কোনো কাজ করি না  বেকার থাকী হস্তমৈথুন করতে করতে জীবন তিতা করে  ফেলছি এখন সমাজে মুখ দেখাতে লজ্জা লাগে সবাই  বুঝো আমি এরকম মানুষ কি করবো                       মা বাবার সাথে ঝগড়া করি প্রতিদিন কোনো কাজ করি না  বেকার থাকী হস্তমৈথুন করতে করতে জীবন তিতা করে  ফেলছি এখন সমাজে মুখ দেখাতে লজ্জা লাগে সবাই  বুঝো আমি এরকম মানুষ কি করবো                      
জিজ্ঞাসা করেছেন
বিভাগ:
3 টি উত্তর
পাঁচ ওয়াক্ত নামায পড়েন আর তাওবা করে আল্লাহর কাছে মাফ চান- সব ঠিক হয়ে যাবে----
আপনি ধৈর্য্য ধরে থাকুন । কারো কথায় ও কাজে অসন্তষ্টিবোধ করবেন না । পরিবার প্রতিবেশীদের সাথে সদা ভালো আচরণ করুন । অপরের বিপদে ও দুর্দশা দেখা মাত্রই সাহায্যের জন্য ঝাপিয়ে পড়ুন । অতংপর পড়াশুনার ইচ্ছা থাকলে নতুন করে শুরু করুন বা কোনো কাজ বা চাকরির নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দেখে অ্যাপ্লাই করুন
আমার মতে আপনি আগে ওই বাজে কাজ করা টা বন্ধ করুন। এটা আপনার জন্য ক্ষতিকর। আপনি ওই কাজ টার প্রতি নেশাগ্রস্থ যার ফলে আপনি স্বাভাবিক ভাবে জীবন যাপন করতে পারছেন না। যখন কোন ব্যাক্তি নেশাগ্রস্থ হয়ে পড়ে তখন সে নানা রকম সমস্যা তে পড়ে যায়। বাবা মায়ের সাথে বাজে ব্যবহার করা উচিত নয়। আপনি যদি নিজেকে চেঞ্জ না করেন তাহলে কোন কিছুই ঠিক হবে না। সর্ব প্রথম নিজেকে চেঞ্জ করতে হবে। বাজে কাজ টা করা বন্ধ করে দিতে হবে। বর্তমানে একটু ব্রেন খাটিয়ে কাজ করলে কোন ছেলেই বেকার থাকে না। এটা ডিজিটাল যুগ এখন ইনকাম করার নানা রকম সোর্স আছে। আপনি ছাত্র হলে লেখা টিউশনি করার,বা লেখা করার পাশা পাশি কোন দোকানে কাজ নিন এতে করে বেকারত্ব টা ঘুচে যাবে। মানুষ এক লাফেই কাছে উঠতে পারে না। তাই আপনি চাইলেও এক লাফে ভাল কোন জব বা কাজ পাবেন না। তাই নিজের জন্য যে কোন কাজ খুঁজে নিন। সে টা যে কোন কাজ হবে কোন কাজ কে ছোট মনে করবেন না। আমার মতে আপনি বেকার হয়ে ঘুরে বেড়ান তাই এই সমস্যা গুলার সামনে পড়েন। যখন আপনি কোন কাজে নিয়ে ব্যস্ত থাকবেন তখন বাড়িতে কম থাকবেন আলস সময় কম কাটাবেন বলে বাবা মায়ের সাথে কোন ভাবেই ঝামেলা হবে না। এমনকি এলাকার লোকেরাও তখন আপনাকে নিয়ে বাজে মন্তব্য করবে না। সারা দিন কাজ করে বাসায় ফেরার পর বাজে কাজ ট করতে ইচ্ছা করবে না তখন সব ঠিক হয়ে যাবে। সাথে সাথে ৫ ওয়াক্ত সালাত সময় মত আদায় করুন। ইন শা আল্লাহ্ সব ঠিক হয়ে যাবে।