ছাত্রছাত্রীদের জন্য মাত্র ৭০০ টাকায় কম্পিউটার বিক্রি করছে নেক্সট থিং নামের কোম্পানি?
 (26734 পয়েন্ট)

জিজ্ঞাসার সময়

1 Answer

 (26734 পয়েন্ট) 

উত্তরের সময় 

এক গিগাহার্জ প্রসেসর, ৫১২ র‍্যাম, ৪ জিবি মেমোরির কম্পিউটারের দাম মাত্র ৭০০ টাকা (নয় ডলার)। ‘চিপ’ নামক ম্যাচ বাক্সের সমান আকৃতির কম্পিউটারটি তৈরি করেছে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার প্রতিষ্ঠান নেক্সট থিং করপোরেশন। গবেষণা ও প্রযুক্তি সহজলভ্যতার লক্ষ্যেই এই প্রযুক্তি বানিয়েছেন একদল তরুণ প্রযুক্তিবিদের প্রতিষ্ঠানটি। 

বছর দুয়েক আগে প্রযুক্তিবিশ্বে বিপ্লব নিয়ে আসে ক্রেডিট কার্ডের সমান আকৃতির কম্পিউটার র‍্যাসবেরি পিআই। কম্পিউটার সম্পর্কে মানুষের ধারণায় পরিবর্তন আনে এই প্রযুক্তি। মাত্র ২৫ ডলারের কম্পিউটারটিকে টেক্কা দিতেই এসেছে ‘চিপ’। কারণ প্রযুক্তি ও আকৃতিতে দুই ক্ষেত্রেই  র‍্যাসবেরির পাইয়ের চেয়ে চিপ এগিয়ে। রাসবেরির চেয়ে এর দামও কম। 

https://youtu.be/XkfBWAJ7kbI

নেক্সট থিং করপোরেশনের তরুণ প্রযুক্তিবিদরা জানান, ম্যাচ বাক্সের আকৃতির চিপ কম্পিউটারকে যে কোনো ভিডিএ বা এইচডিএমআই অ্যাডাপটারে যুক্ত করতে হয়। কোনো পর্দা (ডিসপ্লের) বা টেলিভিশনের সঙ্গে অ্যাডাপ্টার দিয়ে যুক্ত করলেই এটি হয় পূর্ণাঙ্গ কম্পিউটার। ওই ডিসপ্লে কম্পিউটারের মনিটরের মতো কাজ করে। পরে যুক্ত করতে হয় ইনপুট ডিভাইস (মাউস, কিবোর্ড)। চিপের মধ্যে আছে লিনাক্সভিত্তিক মুক্ত অপারেটিং সিস্টেম। তাই যে কোনো মুক্ত প্রোগ্রাম এতে চালানো যায়। আর চিপের ইন্টারনাল মেমোরিতে ১১টি প্রোগ্রাম দেওয়া থাকে। এ ছাড়া পকেট চিপ নামক মোবাইলের মতো একটি যন্ত্রাংশের সঙ্গে চিপ যুক্ত করলে এটি বহনযোগ্য কম্পিউটারে পরিণত হবে। 

চিপের সঙ্গে যুক্ত করার বিভিন্ন যন্ত্রপাতিও বাজারজাত করছে প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানটি। এগুলোর মধ্যে আছে ভিজিএ ও এইচডিএমআই অ্যাডাপ্টার, পকেট চিপ ইত্যাদি। প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকেই চিপের সংশ্লিষ্ট যন্ত্রপাতি তাঁদের কাছ থেকে কেনার অনুরোধ করা হয়েছে। এতে চিপের দাম সব সময়ই নয় ডলারে রাখা সম্ভব হবে বলে তারা জানিয়েছে। 


প্রযুক্তিবিদরা জানান, চিপের মাধ্যমে যে কেউ পরিপূর্ণ কম্পিউটিংয়ের স্বাদ পাবেন। এ ছাড়া এর মাধ্যমে গেমও খেলা যায়। চিপের প্রস্তুতকারকরা জানিয়েছেন, এর নকশা ও সফটওয়্যার উন্মুক্ত রাখা হয়েছে। তাই যে কেউ  নিজের মতো করে চিপে পরিবর্তন আনতে পারবেন।

গত ৭ মে চিপ বাজারে এসেছে। আপাতত এটি শুধুমাত্র যুক্তরাষ্ট্রে পাওয়া যাচ্ছে। রাসবেরি পিআই যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে আসার কয়েক মাসের মধ্যেই বাংলাদেশে চলে আসে। তাই আশা করা যায় চিপ হাতে পেতে দেশের প্রযুক্তিবিদদের খুব বেশিদিন অপেক্ষা করতে হবে না। 

চিপের বিভিন্ন অফার সম্পর্কে জানতে চাইলে এই ঠিকানায় যান-
https://www.kickstarter.com/projects/1598272670/chip-the-worlds-first-9-computer

সম্পর্কিত প্রশ্নসমূহ

Loading...

জনপ্রিয় টপিকসমূহ

Loading...