ইহুদীদের ধর্মগ্রন্থ তাওরাত -এর সর্বাধিক প্রাচিনতম কপি কোনটি এবং তা কোথায় ও কি ভাবে সংরক্ষিত রয়েছে এবং তা কতটা পুরাতন? ইহুদীদের ধর্মগ্রন্থ তাওরাত -এর সর্বাধিক প্রাচিনতম কপি কোনটি এবং তা কোথায় ও কি ভাবে সংরক্ষিত রয়েছে এবং তা কতটা পুরাতন? ধর্মীয় প্রধান ও প্রামাণ্য গ্রন্থ গুলোর তথ্য উপস্থাপনের সময় দয়া করে নিচের বিষয় গুলো একটু খেয়াল করবেন। ১// সর্বপ্রথম হস্তলিখিত গ্রন্থের লিখনের তারিখ ও প্রাপ্তিস্থান ও লেখকের নাম ও বর্তমান সংরক্ষিত স্থান ও কতটা পুরাতন ইত্যাদি। ২// সর্বপ্রথম ছাপানো গ্রন্থের ছাপানোর তারিখ ও প্রাপ্তিস্থান ও লেখকের নাম ও বর্তমান সংরক্ষিত স্থান ও কতটা পুরাতন ইত্যাদি। ৩// একই ভাবে অন্য কোন ভাবে সংরক্ষিত হলে সেটার তারিখ ও প্রাপ্তিস্থান ও লেখকের নাম ও বর্তমান সংরক্ষিত স্থান ও কতটা পুরাতন ইত্যাদি। তথ্যগুলো কারো জানা থাকলে রেফারেন্স সহ উপস্থাপন করার অনুরোধ জানিয়ে রাখলাম। আর সেই সাথে রেফারেন্সের ওয়েব লিন্ক দেয়া সম্ভব হলে সেটাও দেওয়ার অনুরোধ জানালাম।
3 টি উত্তর

Torah scroll found in University of Bologna library

সর্বাধিক পুরোনো তাওরাত/বাইবেল। চিত্রসূত্রঃ বিবিসি

কার্বন টেস্ট করে প্রাপ্ত ফলাফল অনুযায়ী তাওরাতটি ৮৫০ বছরেরও বেশি পুরোনো। (বিবিসি)

 (১১৫৫-১২২৫ সময়কালের। সূত্রঃhttp://news.nationalgeographic.com/news/2013/05/130530-worlds-oldest-torah-scroll-bible-bologna-carbon-dating/)

প্রাপ্তিস্থানঃ ইতালির The University of Bologna -র লাইব্রেরিতে।১৮৮৯ সাল থেকে আছে।

(বলা হচ্ছে এটাই সর্বাধিক পুরোনো পরিপূর্ণ তাওরাত) (বিবিসি)

তথ্যসূত্রঃ http://www.bbc.com/news/world-europe-22697098

তাওরাতের সবথেকে পুরাতন সংস্করন হচ্ছে ওল্ড টেষ্টামেন্টের বুক অব জেনেসিসের প্রথম গ্রন্থ তোরাহ যেটা সর্বপ্রথম কবে লেখা হয় তার স্বঠিক সময় কেউ জানে না তবে ধারনা করা হয় পারশিয়ান আমলের 400 খ্রিষ্টাব্দে প্রথম মৌখিকভাবে নাজিল হয় আর 600 খ্রিষ্টাব্দে প্রথম লেখা হয় যেটা স্কটল্যান্ডের University of Edinburgh তে সংগৃহিত আছে। 

https://en.wikipedia.org/wiki/Old_Testament

https://en.wikipedia.org/wiki/Torah

বণী ঈসরাইলদের উপর নাযীল হয়েছিল আসমানি কিতাব তাওরাত ।যার বাহক ছিলেন হযরত মূসা আঃ।কিন্তু ঈসা আ: এর মৃত্যুর পর তার সম্রদায় সেই কিতাবকে বিকৃত করে ফেলে ফলে তারা অভিশপ্ত জাতীতে পরিগনিত হন এবং তখন থেকে তারা ধর্ম বিচ্যুত হতে হতে আজকের ইহুদিতে পরিনিত হয়।তারা বিকৃত সেই গ্রন্থ কে আসমানি কিতাব (তাওরাত) বলে দাবি করলে মহান আল্লাহ তাদের দাবী কে মিথ্যা বলে আখ্যায়িত করে বলেন, , ﻫَﺎﺗُﻮﺍ ﺑُﺮْﻫَﺎﻧَﻜُﻢْ ﺇِﻥ ﻛُﻨﺘُﻢْ ﺻَﺎﺩِﻗِﻴﻦَ٥ অর্থ: “যদি তোমরা সত্যবাদী হও তাহলে দলিল পেশ কর।” (সূরা বাক্বারা :আয়াত ১১১) কিন্তু তারা কোন প্রমাণ পেশ করতে পারেনি।তাই এখন যেটা তাওরাত নামে পাওয়া যায় সেটা তাওরাত নয়।এটা আর পূর্ণাঙ্গ নেই। http://www.al-baiyinaat.net/1716.html তবে "তোরাহ " কে যে তাওরাত বলে মনে করা হয় সেটা আসলে তাওরাত নয় বরং ইহুদীদের তৈরি ধর্মগ্রন্থ (https://bn.m.wikipedia.org/wiki/বাইবেল) যা প্রায় 600 খ্রিষ্টাব্দে তৈরি করা হয় যেটা স্কটল্যান্ডের University of Edinburgh এ রক্ষিত আছে।