টেষ্টোস্টেরন হরমনের অভাবে কি চুল পাকে?আমার বয়স মাত্র ১৬ এই বয়সে আমার সব চুল পেকে গেছে?এখন এটা কি কারনে হতে পারে?আমি মাত্রাতিরিক্ত হস্তমৈথুন? করেছি।এবং যৌন দুর্বলতায় ভুগতেচি।আমার ধারনা হস্তমৈথুন করার কারনে আমার শরীরে পুষ্টি উপাদান চলে গেছে যার ফলে কম বয়সে চুল পেকে গেছে।এখন আমার ধারনা কি সঠিক?নাকি এটি হরমনগত সমস্যা?
বিভাগ: 

1 টি উত্তর

না,মাথার চুলের ক্ষেত্রে এমনটি হয়না।টেস্টোস্টেরনের ঘাটতির কারনে আপনার শরীরের বিভিন্ন স্থানে চুল কমে যেতে পারে /পেকে যেতে পারে,তবে মাথার চুলের ক্ষেত্রে এমনটি ঘটে না।চুল পাকা মূলত জেনেটিক বা হরমোনের সমস্যার কারনে হয়।আমাদের ত্বকে মেলানোসাইট নামে এক ধরনের কোষ থাকে, যা মেলানিন উৎপাদন করে। যাদের কম মেলানিন উৎপাদন হয় তাদের গায়ের রঙ সাদা হয় এবং বেশি উৎপাদন হলে গায়ের রঙ কালো হয়। চুলের ক্ষেত্রেও একই কথা বলা যায়। যদি কোনো কারণে চুলের গোড়ার মেলানোসাইট কোষ নিষ্ক্রিয় হয়ে মেলানিনের উৎপাদন বন্ধ হয়ে যায়- ফল স্বরূপ চুলের রঙ সাদা হয় যাকে আমরা চুল পাকা বলি।অল্প বয়সে যাদের চুল পাকে তাদের কারও কারও মধ্যে অটোইমিউন ডিজিজের কারণে মেলানোসাইট কোষ নিষ্ক্রিয় হয়ে যায়। ফলে চুলে মেলানিন না পৌছানোর কারণে চুল পাকে।।এছাড়া রক্ত স্বল্পতা বি ভিটামিনের ঘাটতি, থাইরয়েডের সমস্যা এবং অন্যান্য রোগের কারণে অকালে চুল পেকে যেতে পারে।আপনাকে অবশ্যই হস্তমৈথুন বাদ দিতে হবে।টেস্টোস্টেরনের অভাবে বীর্য উৎপাদনের পরিমাণও যেতে পারে,এছাড়া যৌন স্প্রিহা হ্রাস পাওয়া এবং যৌন দুর্বলতা দেখা দিবে


সাম্প্রতিক প্রশ্নসমূহ