বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
194 জন দেখেছেন
"তথ্য-প্রযুক্তি" বিভাগে করেছেন (15,868 পয়েন্ট)

2 উত্তর

0 টি পছন্দ
করেছেন (10,983 পয়েন্ট)

বেশ কিছুদিন আগে Edward Snowden ফাঁস করেছিলো, জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মার্কেলের ফোনে আড়িপাতে মার্কিন গোয়েন্দাসংস্থা NSA আর ব্রিটিশ G.C.H.Q. মুখে, মিডিয়ার সামনে, যতই মার্কিন জার্মান বন্ধুত্বের ভাব দেখানো হোক, বাস্তবে দুই দেশের মাঝে রয়েছে বড়সড় পারস্পারিক অবিশ্বাস। বিশেষ করে ইউরোপে জার্মানি প্রভাব দ্রুত বৃদ্ধি পাওয়া, ও ক্রমশ ইউরোপের দেশগুলো জার্মানির উপর নির্ভরশীল হয়ে পড়া আমেরিকা জন্য বেশ ভালোই মাথাব্যাথা হয়ে দাঁড়িয়েছে রিসেন্ট সময়ে।

ওদিকে তার কিছুদিন আগেই Wikileaks ফাঁস করেছে FinFisher এর কথা!! এবার বলি FinFisher কী। এটা একটি জার্মান কোম্পানি যা দুনিয়ার বিভিন্ন দেশের গোয়েন্দাসংস্থা এর কাছে weaponised surveillance malware বিক্রি করে। Wikileaks এর তথ্য মতে একাজ করে তাঁরা এখন পর্যন্ত ৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আয় করেছে। Wikileaks এটাও ফাঁস করেছে যে বাংলাদেশও FinFisher এর একজন customer!

কখনো কম্পিউটার বা মোবাইলে ব্যবহৃত software update এর সাথে মিশিয়ে দিয়ে, আবার কখনো personal email ID তে নিকটজনের পাঠানো attach file এর সাথে মিশিয়ে দিয়ে, বিভিন্ন তরিকায় গোয়েন্দাসংস্থাগুলো টার্গেটের মোবাইলে বা কম্পিউটারে এটা install করে দেয়। এরপর তো কি হবে বুঝতেই পারছেন। আপনার কথাবার্তা, যাবতীয় সব কর্মকান্ড তাঁরা তদারকি করতে পারবে। আপনার ব্যক্তিগত ফাইল দেখতে পারবে অনায়াসে। কথাবার্তা রেকর্ড করতে পারবে।

It is indeed a weaponised surveillance malware….আগেই বলেছি, দুনিয়ার বিভিন্ন দেশের গোয়েন্দাসংস্থাগুলো এই কোম্পানির কাছ থেকে এসব malware কিনেছে। এসব দেশ’কে কোম্পানিটি আলাদা আলাদা কোড নেমে ডাকে। যেমন বাংলাদেশের username : 6B9EDD58 (এই কোড লিখে গুগলে সার্চ দিয়ে দেখতে পারেন!)। NSI মোট ছয়খানা লাইসেন্স কিনেছে। কাতার, পাকিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, সিঙ্গাপুর, নেদারল্যান্ড, হাঙ্গেরি, ইতালির মত আরো অনেক দেশ কিনেছে। রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তার জন্য হুমকি বিবেচনা সাপেক্ষে যেকোনো ব্যক্তির উপর সারভিলেন্স করার কাজে।

জার্মান চ্যান্সেলর মার্কেল যতই মানুষের প্রাইভেসির কথা মুখে বলুক, মার্কিন কর্মকর্তাদের উপর জার্মান গোয়েন্দাসংস্থা BND-এর নজরদারী করার অভিযোগ কিছুদিন আগে মার্কিনীরা তুলেছিলো। তুরস্ক সরকারের উপর বহুদিনই গোপনে নজরদারী চালিয়ে আসছে BND, এটাও এখন বহুল প্রচারিত খবর। অথচ তুরস্কও কিন্তু ইউরোপীয় ইউনিয়নের পার্টনার। আর এসব কাজে BND ব্যবহার করেছে FinFisher এর develop করা malware…চ্যান্সেলর মার্কেল প্রকাশ্যেই FinFisher এর পক্ষ নিয়েছেন।

দিনশেষে কেউই সাধু নয়। প্রত্যেকেই অন্যের উপর কর্তৃত্ব দেখানোর জন্যে ছলে-বলে-কৌশলে গোয়েন্দা নজরদারী করছে।

যাই হোক, NSI এর কথা যখন উঠলই, তাহলে এটাও বলি, বেশ কয়েক বছর আগে এই NSI কিন্তু ভারতে একটা Successful Operation চালিয়েছিলো।  আপনারা চাইলে NSI এর সেই ঘটনা নিয়ে পরবর্তীতে টিউন করতে পারি।

 

যাই হোক, পড়ার জন্য ধন্যবাদ :-)

*Credit: ইন্টারনেট ও ফেসবুক(ফেসবুক আইডি প্রকাশ করছি না প্রাইভেসির কারনে) থেকে সংগৃহীত ও কপিকৃত।

0 টি পছন্দ
করেছেন (178 পয়েন্ট)
ভাই এই তথ্য শুধু মাত্র তাঁরাই ভাল জানে। জনসাধারণের এই জানার বিষয়টি ক্ষমতার বাহিরে।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

2 টি উত্তর
1 উত্তর
27 ডিসেম্বর 2019 "নিত্য ঝুট ঝামেলা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন অজ্ঞাতকুলশীল

368,317 টি প্রশ্ন

463,869 টি উত্তর

145,465 টি মন্তব্য

193,594 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...