বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
176 জন দেখেছেন
"ধর্ম ও আধ্যাত্মিক বিশ্বাস" বিভাগে করেছেন (833 পয়েন্ট)

2 উত্তর

+2 টি পছন্দ
করেছেন (10,889 পয়েন্ট)
নাওয়াইতু আন উসাল্লিয়া লিল্লা-হি তাআলা রাকয়াতাই সালাতি এরকম যে নিয়ত নামাজের পূর্বে বলা হয় তা কুরআন সুন্নাহে বর্নিত হয়নি।

তাই নামাজের নিয়তে রাকয়াতাই আর রাকয়াতি বলতে হবে না।

নিয়ত আরবী শব্দ। যার অর্থ হল, ইচ্ছা বা সংকল্প। আর ইচ্ছার স্থান হচ্ছে অন্তর। তা মুখে উচ্চারণ করার প্রয়োজন নেই।

আল্লাহ তাআলা বলেন, হে নবী! আপনি বলে দিন, তোমরা মনের কথা গোপন করে রাখ অথবা প্রকাশ করে দাও, আল্লাহ সে সবই জানতে পারেন। আর আসমান জমিনে যা কিছু আছে সে সবই তিনি জানেন। আল্লাহ সর্ববিষয়ে শক্তিমান। (সূরা আল ইমরানঃ ২৯)

উমার বিন খাত্তাব (রাঃ) বলেন, আমি রাসূল (সাঃ) কে বলতে শুনেছি, হে লোক সকল! কাজ-কর্মের ফলাফল দৃঢ় সংকল্পের ওপর নির্ভরশীল। প্রতিটি মানুষের ভাগ্যে তাই জুটবে যা সে নিয়ত বা সংকল্প করেছে। (সহীহ বুখারীঃ ৬৪৭০)

একজন বিবেকবান, সুস্থ মস্তিষ্ক, লোক কোনো কাজ করবে আর সেখানে তার কোনো নিয়ত বা ইচ্ছা থাকবে না সেটা সম্ভব নয়। নামাজ একটি গুরুত্বপূর্ণ আমল, সুতরাং নামাজের পূর্বে নিয়ত করা প্রয়োজন। নিয়ত হল অন্তরের সাথে দৃঢ় সংকল্প, শব্দের সাথে এর কোনো সম্পর্ক নেই।

আমাদের সমাজে নামাজের নিয়ত মুখে উচ্চারণের বাধ্য বাধকতা স্বরূপ যে কিছু আরবি শব্দের যে নিয়ত প্রচলন আছে তা কুরআন হাদিস সম্মত নয়। নিয়ত করার বিষয় এবং এর সম্পর্ক মুখের সাথে নয় বরং অন্তরের সাথে।

সুতরাং অন্তরের দৃঢ় সংকল্প ও ইচ্ছা করার নামই হল নিয়ত। মুখে আরবিতে নামাজে নিয়ত পড়া নব উদ্ভাবিত বিষয়, আর তা বিদআত! বিদআত!! এবং বিদআত!!! যা বর্জনীয়।
সাবির ইসলাম অত্যন্ত ধর্মীয় জ্ঞান পিপাসু এক জ্ঞানান্বেষী। জ্ঞান অন্বেষণ চেতনায় জাগ্রতময়। আপন জ্ঞানকে আরো সমুন্নত করার ইচ্ছা নিয়েই তথ্য প্রযুক্তির জগতে যুক্ত হয়েছেন নিজে জানতে এবং অন্যকে জানাতে। লক্ষ কোটি মানুষের নীরব আলাপনের তীর্থ ক্ষেত্রে যুক্ত আছেন একজন সমন্বয়ক হিসেবে।
করেছেন (833 পয়েন্ট)
অন্তরে আরবী নিয়্যত করবো নাকি বাংলা নিয়্যত।
করেছেন (173 পয়েন্ট)
শুধুমাত্র কোন নামাজ, কোন ধরনের নামাজ, কত রাকঅাত নামাজ, একাকী নাকি ইমামের পিছনে অন্তরে এই নিয়্যাত করাই যথেষ্ট। যেমন - ফজরের ফরজ নামাজ জামাতের সাথে পড়লে সে ক্ষেত্রে অন্তরে ফজরের দুই রাকঅাত নামাজ ইমামের পিছনে পড়ার নিয়্যাত করলেই হবে। ভাষা এখানে মুখ্য নয়।  তা যে কোনো ভাষায় হতে পারে। 
করেছেন (752 পয়েন্ট)
জ্বি ভাইজান উত্তর একদম ঠিক আছে
+1 টি পছন্দ
করেছেন (2,189 পয়েন্ট)
আরবিতে রাকআ'তায় শব্দটি দ্বীবচন, অর্থ হলো- দুই রাকাআ'ত৷ এটি দুই রাকাআ'ত বিশিষ্ট নামাজে বলা হয়৷

আর রাকআ'তি শব্দটি এক বচন৷ নিয়তের মধ্যে এরপূর্বে কয় রাকাআ'ত সে সংখ্যা উল্লেখ থাকে৷ যেমন: আরবাআ'তি রাকাআ'তি অর্থ চার রাকাআ'ত (চার রাকাআ'ত বিশিষ্ট নামাজে), ছালাছাতি রাকাআ'তি অর্থ তিন রাকাআ'ত (তিন রাকাআ'ত বিশিষ্ট নামাজে)৷
করেছেন (752 পয়েন্ট)
ভাল কাজ হলেই সেটা করা যাবেনা

গুনাহ না হলেই সেটাকে ইবাদত বলা যাবেনা

উদাহরন সরুপ ধরেন নামাজ পড়া কি?

খুবই ভাল কাজ রাইট?

কিন্তু ধরুন মাগরিবের নামাজ ফরয ৩ রাকাত আপনি যদি ৪ রাকাত পরে বলেন যে খারাপ কই আমি তো আরো বেশি পড়েছি নামাজ পড়া তো ভাল কাজ ই তাইলে গুনাহ কেনো হবে।

মাগরিবের নামাজ ৩ রাকাত কে ৪ রাকাত পড়া যাবেনা কারন রাসুল স: পড়েন নি তেমনি নামাজের শুরুতে নাওয়াইতোয়ান পড়া যাবেনা তারন রাসুল স: পড়েন নি।

আশা করি বুঝেছেন
করেছেন (752 পয়েন্ট)
আপনি শুধু নিয়ত  অর্থ টা জানেন তাহলেই সব পরিষ্কার হয়ে যাবে। নিয়ত অর্থ হচ্ছে ইচ্ছা করা। সুতরাং আপনি মনে মনে শুধু নামাজ পড়ার ইচ্ছা করবেন ওইটাই নিয়ত।

যেমন ধরুন আপনি বাসা থেকে বাজারে যাওয়ার উদ্দেশ্য নিয়ে বেড় হলেন, আপনি কি বাসা থেকে নিয়ত করেছেন আলাদা করে যে আমি বাজারে যাবো এই সেই।?

আপনার মনে মনে ছিল যে আমি বাজারে যাচ্ছি ওইটাই আপনার নিয়ত
করেছেন (833 পয়েন্ট)
ধন্যবাদ আজ থেকে তাহলে নিয়ত করব না।
করেছেন (4,853 পয়েন্ট)
কেন ভাই! নিয়ত করবেন না কেন? নামাজ পড়তে হলে আপনাকে নিয়ত করতে হবে। নিয়ত ছাড়া নামাজ হবে না। তবে আমাদের জেনে রাখতে হবে, নিয়ত উচ্চারণগত কোনো বিষয় নয়; বরং অন্তর্গত বিষয়। আপনি কোন নামাজ পড়ছেন সে বিষয়টা আপনার মনে জাগ্রত থাকতে হবে। সেটা মুখে উচ্চারণ করবেন না।
করেছেন (833 পয়েন্ট)
তাহলে মনে মনে নাওয়াইতুয়ান এটা বলব?নাকি অন্য কিছু আমাকে একটু বুঝিয়ে দিন। মনে মনে কি বলবো?যে আমি জোহরের ফরজ পড়ছি?

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
09 অগাস্ট 2016 "স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন kamrul hasan kamrul (61 পয়েন্ট)

368,478 টি প্রশ্ন

463,981 টি উত্তর

145,496 টি মন্তব্য

193,620 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...