বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
22 জন দেখেছেন
"ইসলাম" বিভাগে করেছেন (12 পয়েন্ট)

বরকনে ব্যতীত একজন পুরুষ ও দুইজন নারী উপস্থিত থাকাব্যস্থায়,উপস্থিত পুরুষ সাক্ষী যদি বর এবং কনেকে ইজাব দেয় এবং বর কনে উভয়েই কবুল করে,তবে কি শরীয়ত মোতাবেক বিবাহ বৈধ হবে?

সাক্ষী হিসেবে ঐ পুরুষ কি বাতিল হয়ে যাবে ইজাব দেয়ার কারণে?

আরেকটি প্রশ্ন,খুতবাবিহীন বিবাহ কি অবৈধ হবে?

1 উত্তর

0 টি পছন্দ
করেছেন (6,125 পয়েন্ট)
  • সাক্ষী ইজাব দিতে পারবে না তথা বিবাহ পড়াতে পারবে না। সাক্ষী ইজাব দিলে তার সাক্ষী বাতিল হয়ে যাবে। এমতাবস্থায় সে ছাড়া আরও দুজন পুরুষ কিংবা একজন পুরুষ ও দুজন মহিলা সাক্ষী হিসেবে উপস্থিত থাকতে হবে। অর্থাৎ, বিয়ে পড়ানোর লোক বা কাজি থাকবে আলাদা, আর সাক্ষী থাকবে আলাদা। তবে বিয়ের বর নিজেই নিজের বিয়ের কাজি হতে পারবে। [ফাতাওয়া কাসিমিয়া : ১২/৭০৮]
  • প্রশ্নোক্ত ক্ষেত্রেও "একজন পুরুষ ও দুইজন নারী (সাক্ষী হিসেবে) উপস্থিত থাকাব্যস্থায়,উপস্থিত পুরুষ সাক্ষী যদি বর এবং কনেকে ইজাব দেয় এবং বর কনে উভয়েই কবুল করে" তবে (যদি বর-কনে একই বৈঠকে উপস্থিত না থাকে, তাহলে) শরিয়ত অনুযায়ী তাদের বিয়ে বৈধ হবে না। ইজাব দেওয়ার কারণে ওই পুরুষের সাক্ষী বাতিল হয়ে যাবে। [ফাতাওয়া কাসিমিয়া : ১৩/৪১] তবে সাক্ষী যে মজলিস বা বৈঠকে আছে, একই জায়গায় যদি বিয়ের বর এবং কনেও উপস্থিত থাকে, তাহলে আবার বিয়ে হয়ে যাবে। কারণ, এক্ষেত্রে সাক্ষী বিয়ে পড়ালেও সে বিয়ের কাজি নয়; বর-কনে নিজেরাই বিয়ের আকদকারী বা কাজি হিসেবে গণ্য হবে। [হিদায়া : ২/৩০৭; ফাতাওয়া কাসিমিয়া : ১২/৭০৮] (তবে খেয়াল রাখতে হবে, ইজাব যেন সহিহ পন্থায় হয়। মনে রাখবেন, বিয়েতে উভয়কেই ইজাব দেওয়া হয় না বা উভয়ই কবুল বলে না। বরং একজনের পক্ষ থেকে ইজাব বা প্রস্তাব দেওয়া হয় এবং অন্যজন তা কবুল করে।)
  • খুতবাবিহীন বিবাহ বৈধ আছে। কারণ খুতবা বিয়ের ফরজ বা শর্ত নয়। বরং সুন্নাত। আর সুন্নাত ছেড়ে দিলেও বিয়ে হয়ে যায়। [ফাতাওয়া কাসিমিয়া : ১২/৫০৩] 

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
11 ফেব্রুয়ারি "ইসলাম" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Noshin (12 পয়েন্ট)

313,056 টি প্রশ্ন

402,688 টি উত্তর

123,718 টি মন্তব্য

173,412 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...