75 জন দেখেছেন
"ধর্ম ও আধ্যাত্মিক বিশ্বাস" বিভাগে করেছেন (1,174 পয়েন্ট)
সম্পাদিত করেছেন
এ বিষয়ে ইসলামিক বা গ্রহণযোগ‍্য ব‍্যাখ‍্যা কী?

2 উত্তর

0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (731 পয়েন্ট)

মুতা বিবাহ হল; নির্দিষ্ট সম্পদের বিনিময়ে নির্দিষ্ট দিনের জন্য বিবাহ করা।হেদায়া ২য় খন্ড পৃষ্ঠা নং ৩১২

হারাম হ‌ওয়ার কারণ; ইসলামে বিবাহের উদ্দেশ্য হল, স্বামী স্ত্রীর বৈবাহিক সম্পর্ক ভালবাসা, প্রেম-প্রীতির মাধ্যমে দীর্ঘায়িত হবে এবং সন্তান-সন্তুতি লাভ করবে।আর মুতা বিবাহ যেহেতু এই উদ্দেশ্য পরিপন্থী তাই ইসলামে মুতা বিবাহ হারাম করা হয়েছে।


0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (5,711 পয়েন্ট)
মুতাআহ বিবাহ হলো এক ধরণের সাময়িক বা অস্থায়ী বিবাহ। যা একটি সময়ের জন্য মহরের বিনিময়ে কোনো স্ত্রী লোকের সাথে অনুষ্টিত হয়। নির্দিষ্ট সময় সীমা অতিক্রম হওয়ার সাথে সাথে আপনা হতে এ বিবাহ ভঙ্গ হয়ে যায়। এর জন্য তালাকের দরকার হয় না।

অথবা, মুতাআহ বিবাহ একটি স্বল্প সময়ের বিবাহ। অর্থাৎ কোন নারী ও পুরুষ অল্প কিছু সময়ের জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়ে এ বিবাহ করতে পারে। তবে এই সময় সম্পর্কে কোন সর্বনিম্ম বা সর্বোচ্চ সময় বাধা ধরা নাই। এক ঘন্টার জন্য ও চাইলে কোন পুরুষ নারীর সাথে বা কোন নারী পুরুষের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে পারে।

সহজ ভাষায়, এক রাত্রির বিয়ের ইসলামি পরিভাষায় নাম হলো মুতাআহ বিবাহ। এই বিয়ের প্রথা হলো একজন পুরুষ কোন মেয়ের সাথে স্বল্প সময়ের জন্য বিয়ের চুক্তি করে তার সাথে সঙ্গম করতে পারবে।

যে কারণে মুতাআহ বিবাহ বৈধ নয়ঃ মুতআহ বা সাময়িক বিবাহ ইসলামে বৈধ নয়। কিছুর বিনিময়ে কেবল এক সপ্তাহ বা এক মাস বা বছর স্ত্রীসঙ্গ গ্রহণ করে বিচ্ছিন্ন হওয়ায় যেহেতু ঐ স্ত্রী ও তার সন্তানের দুর্দিন আসে, তাই ইসলাম এমন বিবাহকে হারাম ঘোষণা করেছে। (বুখারী, মুসলিম, মিশকাত)
টি উত্তর
২১ জানুয়ারি ২০১৯ "ক্যারিয়ার" বিভাগে উত্তর দিয়েছেন Ariful (৬৩৭৩ পয়েন্ট )
টি উত্তর

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
1 উত্তর
2 টি উত্তর
26 ডিসেম্বর 2018 "যৌন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Badshah Niazul (1,174 পয়েন্ট)
2 টি উত্তর
26 ডিসেম্বর 2018 "যৌন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Badshah Niazul (1,174 পয়েন্ট)

283,685 টি প্রশ্ন

368,219 টি উত্তর

111,047 টি মন্তব্য

153,123 জন নিবন্ধিত সদস্য



বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
* বিস্ময়ে প্রকাশিত সকল প্রশ্ন বা উত্তরের দায়ভার একান্তই ব্যবহারকারীর নিজের, এক্ষেত্রে কোন প্রশ্নোত্তর কোনভাবেই বিস্ময় এর মতামত নয়।
...