226 জন দেখেছেন
"স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে করেছেন (5,978 পয়েন্ট)

2 উত্তর

0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (935 পয়েন্ট)

হৃৎপিন্ড আক্রমণের পরে কড লিভার অয়েলের ব্যবহার হৃৎপিন্ডের জন্য অত্যন্ত উপকারী। এছাড়া কড লিভার অয়েল হৃদযন্ত্রের সুস্বাস্থ্য বজায় রাখতে ভূমিকা পালন করে। image কড লিভার অয়েল এবং মাছের তেল প্রায় একই ধরণের, তবে কড লিভার অয়েলে বেশি পরিমাণে ভিটামিন এ এবং ডি রয়েছে। এক টেবিল চা-চামচ পরিমাণ কড লিভার অয়েলে ৪০৮০ মাইক্রোগ্রাম ভিটামিন এ এবং ৩৪ মাইক্রোগ্রাম ভিটামিন ডি রয়েছে।প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষদের প্রতিদিন ভিটামিন এ-এর চাহিদা ৯০০ মাইক্রোগ্রাম এবং মহিলাদের ৭০০ মাইক্রোগ্রাম। এবং ভিটামিন ডি-এর চাহিদা ১৫ মাইক্রোগ্রাম। তবে সর্বোচ্চ ব্যবহারযোগ্য ভিটামিন-এ গ্রহণের পরিমাণ ১০০০০০ মাইক্রোগ্রাম/দিন এবং ভিটামিন ডি ১০০ মাইক্রোগ্রাম/দিন। তাই যেসব মানুষ ভিটামিন-এ এবং ডি-এর উৎস হিসেবে কড লিভার অয়েল গ্রহণ করে, তাদের খেয়াল রাখা উচিত যে কী পরিমাণ ভিটামিন এ এবং ডি তারা তাদের দৈনিক খাদ্যগ্রহণের মাধ্যমে নিচ্ছে।

0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (2,205 পয়েন্ট)
কড লিভার তেল ভিটামিন "এ" এবং "ডি" এর খুব ভালো উৎস। তাই ছোট শিশুদের চোখের দৃষ্টি এবং হাড়ের গঠন মজবুত করতে এই তেলের ব্যাবহার হয়ে থাকে।
টি উত্তর
২১ জানুয়ারি ২০১৯ "ক্যারিয়ার" বিভাগে উত্তর দিয়েছেন Ariful (৬৩৭৩ পয়েন্ট )
টি উত্তর

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

0 টি উত্তর
24 এপ্রিল 2018 "স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Jubaer Mia (8 পয়েন্ট)
1 উত্তর
07 নভেম্বর 2016 "সাধারণ" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন 3d (0 পয়েন্ট)
1 উত্তর
06 এপ্রিল 2014 "সাধারণ" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Dip Roy (698 পয়েন্ট)

288,515 টি প্রশ্ন

373,856 টি উত্তর

113,089 টি মন্তব্য

157,051 জন নিবন্ধিত সদস্য



বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
* বিস্ময়ে প্রকাশিত সকল প্রশ্ন বা উত্তরের দায়ভার একান্তই ব্যবহারকারীর নিজের, এক্ষেত্রে কোন প্রশ্নোত্তর কোনভাবেই বিস্ময় এর মতামত নয়।
...