86 জন দেখেছেন
"স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন (8 পয়েন্ট)

5 উত্তর

0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (1,143 পয়েন্ট)
একটা জিনিস বারবার মনোযোগ দিয়ে পড়তে হবে,যতক্ষন পর্যন্ত আয়াত্তে না আসে।একটা জিনিস একবার পড়লে মনে না থাকাটাই স্বাভাবিক তার জন্য নিয়মিত পড়তে হবে।যেটা আজ       পড়লেন ধরুন সেটা ২-৩ দিন পর আবার পরবেন তাহলে মনে থাকবে। আশা করি ভালো ফলঅফল পাবেন ।
0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (2,187 পয়েন্ট)
যাই পড়বেন বা মুখস্ত করবেন তাই লিখবেন। সপ্তাহে একবার আবার মুখস্ত পড়া আবার রিভাইস ক ররবেন আবার লিখবেন। এভাবে কভেতে থাকুন তাহলে আর মুখস্ত পড়া ভুলবেন না।
0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (13 পয়েন্ট)
ইচ্ছা শক্তি থাকতে হবে,,,আপনি মনে করবেন আমার থেকে পারতে হবে এভাবে জিত করে পড়বা, আর পড়ার শুরুতে দরুদ শরিফ পাট করবা,,ইনশা'আল্লাহ আপনার চেস্টা সফল হবে
মন্তব্য করা হয়েছে করেছেন (396 পয়েন্ট)
ভাই একবার তুমি, একবার আপনি করে বলছেন যে। যেকোনো একটা ব্যবহার করবেন।
0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (9 পয়েন্ট)
প্রথমে পড়াটি মুখস্থ করবেন যখন মনে হবে মুখস্থ হয়েছে তখন লিখবেন তার এক ঘন্টা পর না পড়ে চেষ্টা করবেন না হলে বার বার পড়বেন ইনশাল্লাহ সফল হবেন
0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (2,269 পয়েন্ট)
সম্পাদিত করেছেন
লেখা পড়ার দুটি দিক আছে।

১। যে বিষয়টি মুখস্ত করার মত না সেটা ভালো করে কয়েক বার বুঝে পড়ে এবং তার পর খাতায় লিখবেন। ঐ সম্পর্কে ভালো ধারণা পাবেন।

২। আর যে বিষয়টি মুখস্ত করতেই হবে সেই বিষয় অল্প অল্প করে পড়ে তারপর খাতায় লিখবেন। আর আপনার কিছুটা হলেও ধারণা পাবেন।

আর হে, লেখাপড়া শুরু করার পূর্বে আল্লাহর নাম নিয়ে শুরু করবেন এতে লেখাপড়ায় মনোযোগ ভারবে এবং আল্লাহর রহমত ভর্ষিত হবে।

লেখাপড়া যখন করবেন অবশ্যই তখন লেখাপড়ায় মন দিবেন অন্যথায় সারাদিন পড়লেও কোন লাভ হবে না।

উপরে উল্লেখিত সব শর্তগুলো মেনে চললে আশা করি আপনার লেখাপড়ায় উন্নতি হবে এবং ভালো রেজাল্ট করতে পারবেন।

আর এতে ডাক্তার দেখানো কোনো প্রশ্নই আসে না। ধন্যবাদ ভালো থাকুন।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

223,310 টি প্রশ্ন

284,814 টি উত্তর

76,846 টি মন্তব্য

110,737 জন নিবন্ধিত সদস্য



বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
* বিস্ময়ে প্রকাশিত সকল প্রশ্ন বা উত্তরের দায়ভার একান্তই ব্যবহারকারীর নিজের, এক্ষেত্রে কোন প্রশ্নোত্তর কোনভাবেই বিস্ময় এর মতামত নয়।
...