74 জন দেখেছেন
"ধর্ম ও আধ্যাত্মিক বিশ্বাস" বিভাগে করেছেন (7,719 পয়েন্ট)
আমি প্রতিদিন ৫ ওয়াক্ত নামায
পড়ার নিয়ত  করি এবং সেই নিয়ত
মাফিক চলি যাতে কোন ওয়াক্ত মিস না
হয় কিন্তূ এশার ওয়াক্ত মিস চলে যায়
আমাদের এখানে এশার আগে কারেন্ট  
চলে যায় এবং ৯ টা ৯.৩০ এ আসে
আর তখন আমার নামায পড়তে ইচ্ছে
করে না।
মানে মস্ত বড় শয়তান ভর করে তাই
সম্ভব হয় না।
আমি নামায না পড়ে ঘুমিয়ে যায়
এই অবস্থাতে আমার করণীয় কী.?????

2 উত্তর

1 টি পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (1,075 পয়েন্ট)

ইচ্ছা থাকলেই উপায় হয়’। আদিকাল

 থেকেই এ প্রবাদ বাক্যটা মানুষের

 মুখে মুখে চলে আসছে। কিন্তু সঠিকভাবে

 কাজ করার ইচ্ছা পোষণ করা এবং

 সে ইচ্ছাকে শেষ পর্যন্ত ধরে রাখা সত্যিই

 কষ্টকর ব্যাপার।  আপিনি পরোকালের

ভয়াবয় কঠিন শাস্তির কথা স্বরন করিয়া নিয়মিত

এশার নামাজ আদায় করুন। সারাদিন ৪ ওয়াক্ত

নামাজ আদায় করেন আর একটু কষ্ট করে এসার

নামাজটি আদায় করলে আপনি পূনার্ঙ্গ নামাজি

ব্যাক্তি হিসেবে আল্লাহর কাছে মনোনিত হবেন।

মানুষ চেষ্টা করলে অনেক কিছুই পারে, তাইতো

সবার উপরে মানুষ সত্য তাহার উপরে নেই। আজ

মনে প্রানে আল্লাহর কাছে প্রতিজ্ঞা করুন, আজ থেকে

প্রতিদিন এশার সালাত আদায় করে তারপরে ঘুমাবেন।

আল্লাহ আপনাকে কভুল করুক। (আমিন)

করেছেন (7,719 পয়েন্ট)
সম্পাদিত করেছেন
বুঝলাম

কিন্তূ এমন কোন পরামর্শ  দিন

যেটা তে উপকার পাই 
0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (1,846 পয়েন্ট)
উমর (রাঃ), আব্দুর রহমান বিন আউফ (রাঃ), মুয়াজ বিন জাবাল (রাঃ), আবু হুরায়রা (রাঃ) ও অন্যান্য সাহাবীর মত বর্ণিত আছে যে, “যে ব্যক্তি ইচ্ছাকৃতভাবে এক ওয়াক্ত ফরয নামায ত্যাগ করে, এক পর্যায়ে ওয়াক্ত শেষ হয়ে যায় সে ব্যক্তি কাফের ও মুরতাদ”[মুহাল্লা ২/১৫ থেকে সমাপ্ত।।
আপনাকে প্রতিটি মুহূর্তে কবরের ভয় মনে রাখতে হবে।।।আর যে ব্যক্তি এশার নামায ছেড়ে দেয় তার ঘুমের পরিতৃপ্তি হয়না।।।আপনি আযানের সাথে সাথে নামায পড়তে চেষ্টা করবেন।।।
টি উত্তর
২১ জানুয়ারি ২০১৯ "ক্যারিয়ার" বিভাগে উত্তর দিয়েছেন Ariful (৬৩৭৩ পয়েন্ট )
টি উত্তর

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
আমার বয়স ২২,অষ্টম শ্রেণীতে পড়া অবস্থায় একবড় ভাই এর মাধ্যমে হস্তমৈথনে হাতে খড়ি হয় এর আমি নিয়মিত হস্তমৈথন করে আসছিলম দিনে ২/৩ বার করে একপর্যায়ে আমি সচেতন হই এবং এর কুফল জানতে পেরে ১০ শ্রেণীতে পড়া অবস্থায় হস্তমৈথন ছেড়ে দি কিন্তু এখন ও মাঝে মাঝে ১/২ মাস পরে হস্তমৈথন হয়ে যায়,,,, কিন্তু এখন মূল সমস্যা আমার লিঙ্গ উত্তেজিত অবস্থায় ৫ ইন্চির মত বড় হয় কিন্তু উত্তেজনা কমে গেলে বাচ্চাদের লিঙ্গ এর মত খুব ছোট হয়ে যায় ১ ইন্চির মত,মাঝে মাঝে ঘুমে বীর্যপাত হয় ও প্রসাব এর সাথে আঠালো বীর্য যায়,,,, এখন আমি খুব চিন্তিত,,এর কোন অ্যালোপাতিক চিকিৎসা আছে,,, কোন ঔষধ সেবন করলে সমাধান পাব। আমি আমার ভবিৎষত বিবাহিত জীবন নিয়ে খুব দুশ্চিন্তায় আছি। দয়া করে সমাধান দিবেন।?
06 এপ্রিল 2017 "যৌন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন zahid_ych (1 পয়েন্ট )
1 উত্তর
21 সেপ্টেম্বর 2016 "যৌন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Master ali (8 পয়েন্ট)

277,796 টি প্রশ্ন

361,426 টি উত্তর

108,122 টি মন্তব্য

148,944 জন নিবন্ধিত সদস্য



বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
* বিস্ময়ে প্রকাশিত সকল প্রশ্ন বা উত্তরের দায়ভার একান্তই ব্যবহারকারীর নিজের, এক্ষেত্রে কোন প্রশ্নোত্তর কোনভাবেই বিস্ময় এর মতামত নয়।
...