409 জন দেখেছেন
"প্রেম-ভালোবাসা" বিভাগে করেছেন (-4 পয়েন্ট)
bumped করেছেন
একটি ছোলের সাথে গত ৩ বছর ধরে আমার সম্পর্ক চলছে। আমি অনার্স করছি। ও অনার্স  শেষ করেছে। মাস্টার্স এ ভর্তি হয়নি। চাকরির জন্য চেষ্টা করছে। গত কয়েক মাস ধরে আমাদের মধ্য নানা বিষয় নিয়ে মনমালিন্য হচ্ছে। ও সম্পর্কেরর শুরু
থেকেই সামান্য রাগরাগিতে সম্পর্ক ভেঙে দিতে চাইত। আমি কোনোরকমে সম্পর্ক টাকে বাচিয়ে রেখেছি। ও কোনো চাকরি পাচ্ছে না। একবার কারো কাছ থেকে একটা স্কুলে চাকরির কনফার্ম অপার পায়। কিন্তু ওর বোনেরা নিষেধ করায় জয়েন করেনি। ও শুধু বলে আমার একটা কিছু করা দরকার। বসে থাকতে চাইনা। আমার কথা হচ্ছে যদি বসে থাকতেই না চায় তাহহলে চাকরি পেয়েও করছেনা কেন? প্রত্যেকটা ব্যাপারে ওর বোনদের অনুমতি লাগবে। ওর পরিবারে ওর মা নেই। ছোটবেলা থেকে বোনেরা আর বাববাবাই বড় কররেছে। হাত করচ থেকে যাবতীয় সব খরচ তারাই দেন। আমার ওর এই নিরর্ভরশীলতা ভাল লাগেনা। আমি চাই ও কিছু করুক যাতে ওর বোনদের কাছে আর টাকা নিতে না হয়। আরও বললাম যেহেতু চাকরি পাচ্ছনা তাহলে মাস্টার্স শুরু করো। কিন্তু ওকে বোঝাতে পারিনি। তাই আমি আর কোনো কথাই বলিনি এ ব্যাপারে। এরপর গত কয়েক মাস আগে একদিন ওর জন্মদিনের দিন ও আমাকে একটা নরমাল কথা বলার জন্য একটা মোবাইল দেয় পুরোনো। আমি ফোনটা তে ফেসবুকিং করি। যখন আমি অনলাইনে গেলাম তখন কেমন যেন আইডিটা খটকা লাগছিল। তবুও কিছু মমনে ককরিনি। পরেরদিন আমি সকালে আবার আইডিতে যাই। আমি তখনও কিছু বুজতে পারিনি। ভাবলাম ইনবক্স টা চেক কররি। গিয়ে দেখি ওখানে এককটা ছেলে ও একটা মেয়ের সেক্স চ্যাট। আমি ভীষন অবাক হই। কারন আমমার আইডিতে এরকম হওয়ার প্রশ্নই আসেনা। সন্দেহ হল আইডিটাকি আদৌ আমারতো? ঠিক কররলাম প্রোফাইল দেখব। গিয়ে দেখি আইডিটা একটা ছেলের। নাম  মোহাম্মদ হৃদয় খান। নামটটা অচনা। তখন মনে পড়ল, আরে আমিতো এই ফোনে আমার আইডি লগ ইনন ই করিনি। তাহলে আমি এই দুদিন ধরে কার আইডি আমার মনে করে চালাচ্ছি? ইনবক্সে মেয়েটির সাথে এস এম এসগুলো ভালো করে পড়লাম। মনে হচ্ছিল আমি সব কিছু ভেঙেচূড়ে যাচ্ছে। কারন ঐ মেয়ের সাথে বলা কথাগুলোর সাথে ওর কথার স্টাইলে অনেক বেশি মিল। আমার সন্দেহ হল এই আইডিটা ওর নয়তো? আবার ভাবলাম নাহ। ওর না। যাকে এত বিশ্বাস করি সে কখনো এটা করবেনা। তাও অন্য মেয়ের সাথে সেক্স চ্যাট? তবুও আমি সাথে সাথে ওকে ফোন দিয়ে আইডি দুটোর নাম বললাম আর জিগ্যেস করলাম চেনে কিনা। ও বলললল চেনেনা। আর বলল ফোনটা আৃাকে দেয়ার আগের দিনন দোকানে দদিয়ে এসেছিল। উল্লেখ্য ফোনটা আসলে ও-ই ব্যবহার করত। তারপর ফোন রেখে আমি ভাবলাম ইনবক্স টা আর একবার দেখব। তাই আইডিততে যাবো। এমন সময় দেখি আইডি লগআউট। সবচেয়ে কঠিন সময় এল তখন যখন দেখলাম আইডির ইমেিল এড্রেস টা ওর নামে। কিন্তু স্বীকার করতে চাচ্ছিল না যে আইডিটা ওর। সেদিনের পর থেকে ওর প্রতি আৃার সব আগ্রহ মন থেকে উঠে গেছে। আমি চাইলেও আর ওকে নিয়ে এক মুহুর্তের জন্য ভাবতে পারিনি। ওরর প্রতি এখন আমার কোনো কিছুই কাজ করেনা। ওকে আমি সেটা বলিনি। আমমি ওকে এড়িয়ে চলার চেষটা করছি। ও হয়য়ত সেটা বুজতে পেরেছিল। কিন্তু ওওর মধ্যে আমি কোনো উৎকন্ঠা দেখিন। ও বেশশ স্বাভাবিক ছিল। আমার আচরনেও ও এতটুকটু প্রতিবাদ করেনি। যা হোক, এরর পর  এমন একটা অবস্থা আসে যে আমমাদের মধ্যে তেমন যোগাযোগ থাকেনা। এরই মধ্যে আমমি ওকে আমার এলাকায় একটা চাকরির অফার দেই। লেকচার পপাবলিকেশনসএ।  চাকরিটার খবর আমি আমার এক পরিচিত আন্টির মাধ্যমে পাই। কারন তাকে আমি আগেই বলে রেখেছিলাম। ওকে জানাই। ও বলল বোনদের কাছে কথা বলে জানাবে। পরেরর দিন ও বলল ও এ চাকরি করতে পারবেনা। ওর বোনেরা মানা করেছে আর বাবাও। তছাড়া ওর বসা থেকে অনেক দুরে হয়ে যায়। আমাদের এলাকায় এসে থাকতে হবে। বাসা খালি রেখে থাকতে পারবেনা। আসল কথা এ চাকরি তার জন্য সম্মান জনক নয় এবং আমার এলাকায় সে চাককরি করবেনা।  আমি ওকে অনেক অনুরোধ করেছিলাম। বলেছিলাম তুমি অন্তত একমাস কাজটা কর। তোমার থকা খাওয়া সব ব্যাবস্থা আমি করব। কিন্তু আমাকে ফিরিয় দিল। তার অনেক দিন পর আজ সে বলল সে নাকি প্রাইড গ্রুপ এ চাকরি পেয়েছে। গাজিপুর। ওখানে থাকতে হবে। ১২ মার্চ সে জয়েন করবে। আজ কেন জনিনা আমি ওর এই সাফল্যে খুশি হতে পারিনি। খুব কষ্ট হচ্ছে। আমার এত কষ্টে, এত অনুরোধে জিয়ানো চাকরিটা রেখেছিলাম ওর জন্য। বেতন ছিল অনেক। হাই rank। ২-২.৩০ঘন্টার রাস্তা আর বাসা খালি থাকবে বলে করলনা। আর গাজিপুরে ২.৩০  ঘন্টার রাস্তা ঠিকই তার কিছে কোনো সমস্যাই না আজ। এটাতে তার বোননেরা অনুমতি ঠিকই দিয়েছে। একন আর বাসা খালি থাকলেও ক্ষতি নেই। আল্লাহ হয়তো তার ভালোর জন্যই এটা করেছে। কিন্তু তবুও আমার মনের মধ্যে কোথায় যেন একটা চাপা কষ্ট অনুভব করছি। তবে কি একাই ভাল ছিলাম????????????? কেন এমন হল বলতে পারেন???

2 উত্তর

0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (906 পয়েন্ট)
সৃষ্টিকর্তা যা করেন ভালোর জন্যই করেন হয়তো সে কখনোই আপনার উপযুক্ত ছিলনা,এমন একটা মানুষের জন্য জীবন এ কষ্ট করে কি লাভ,তাকে পেলেও কি বাকিটা জীবন সুখের হবে,তার আচরনে তা মনে হয় না,এমন খারাপ সঙ্গী থাকার চেয়ে একা থাকাই ভালো। ভুলে যান তাকে,নিজের জীবন নিয়ে ভাবুন, আসলে সে কখনোই আপনাকে ভালোবেসেছে কি না আমার সন্দেহ হয়।
করেছেন (-4 পয়েন্ট)
আমি তাককে এড়িয়ে চলতে চাইলেও পারছিনা। ওর সাথে এখন যোগাযোগ থাকলেও আগের মত আর আমার মধ্যে ওর জন্য কোনো অনুভুতি হয়না। এখন আমমার এককা সময় কাটটাতেই বেশি ভাল লাগে। যখনই ওকে আবার ভালবাসতে চাই তকনই ঐ সেক্স চ্যাট এর কথা মনে পড়লে ফিরে আসি। আমি আরর পারছিনা। আমি কাদতে ভুলে গেছি। শেষ কবে প্রান খুলে কেদেছিলাম ভুলে গেছি। আমি ওর সাথে কথা বলি ঠিকই কিন্তু আমার মাঝে মাঝে মনে হয়য় ও আমমার জীবনে না থাকলেও আমি ভাল থাকতে পারব। এতকিছুর পরেও যখন কাদিনি। বাকি দিনগুলোও আমিমি পেরোতে পারব।
করেছেন (-4 পয়েন্ট)
আমার কি করা উচিৎ তাহলে?
0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (19 পয়েন্ট)

ধন্যবাদ বন্ধু ফারজানা। এমন বিস্ময় প্রশ্ন করার জন্য। তবে কি একাই ভাল ছিলাম???কেন এমন হল?

আপনি অবশ্যই একা ভাল ছিলেন।কারন, আপনি লিখেছেন প্রথম থেকেই ছেলেটি আপনাদের সম্পর্ক ভেঙ্গে দিতে চাইতো। সামান্য রাগারাগিতেই। আর এর দ্বারাই প্রমাণিত হয় আপনার প্রতি ছেলেটির দুর্বলতা নেই। আপনি আরও লিখেছেন ছেলেটি অন্য মেয়ের সাথে অসামাজিক মেসেজ আদান-প্রদান করে যার প্রমাণ আপনি পেয়েছেন ছেলেটির মোবাইল আর ই-মেইল এর মাধ্যমে। আপনি আরও লিখেছেন আপনি ছেলেটির সাথে কথা বলা বা যোগাযোগের দূরত্ব তৈরি করার পরও ছেলেটি স্বাভাবিক ছিলো।

এতে স্পষ্ট প্রমাণিত হয় ছেলেটি একের অধিক মেয়েদের সাথে সম্পর্ক আছে।

আসলে ছেলেটি এই সবরকম কাজ করতে মজা পায়। বলতে পারেন বাজে অভ্যাস বা নেশা/আসক্তি।

এই কারনেই আপনার সাথে এ্মনটা হয়েছে।

আপনার এখন উচিত হবে ছেলেটির সাথে সবরকমভাবে যোগাযোগ বন্ধ করা। সমস্ত গিফট ফেলে দেয়া।

জানি, আপনি এখন খুব কষ্টে আছেন। ছেলেটির কারনে আপনার একটি শূন্যস্থান তৈরি হয়েছে। শূন্যস্থান পূরণ হলে আপনার কষ্ট আর থাকবেনা। নিজে নিজে সবসময় বলুন আপনি ভাল আছেন। যখনি মনে পরবে ছেলেটির কথা মনকে অন্য কাজে ব্যস্ত রাখুন। আশাকরি উত্তর পেয়েছেন। আপনার শূন্যস্থান পূরণ হক এই কামনা। ধন্যবাদ

করেছেন (-4 পয়েন্ট)
আপনাকেও ধন্যবাদ। আমি যখন একা থাকি সত্যিই আমি খুব ভাল সময় কাটাই। বলতে গেলে নিজের মত। তবে আমি চেষ্টা করব ভুলগুলো এড়িয়ে চলতে।
টি উত্তর

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
19 জুলাই 2016 "প্রেম-ভালোবাসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন মোঃ ইকবাল হোসেন (0 পয়েন্ট)
2 টি উত্তর
31 মার্চ 2017 "প্রেম-ভালোবাসা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন অজ্ঞাতকুলশীল

276,986 টি প্রশ্ন

360,543 টি উত্তর

107,754 টি মন্তব্য

148,330 জন নিবন্ধিত সদস্য



বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
* বিস্ময়ে প্রকাশিত সকল প্রশ্ন বা উত্তরের দায়ভার একান্তই ব্যবহারকারীর নিজের, এক্ষেত্রে কোন প্রশ্নোত্তর কোনভাবেই বিস্ময় এর মতামত নয়।
...