104 জন দেখেছেন
"খাদ্য ও পানীয়" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন (1,271 পয়েন্ট)
প্রশ্নটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন...

1 উত্তর

0 টি পছন্দ
উত্তর প্রদান করেছেন (6 পয়েন্ট)

ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে চাচ্ছেন, কিন্তু একেবারেই পারছেন না? তাহলে জেনে রাখুন আপনার খাদ্যাভ্যাসের কারণেই এমনটি হচ্ছে। আপনি যদি না খেয়ে থাকেন তাহলেও কিন্তু আপনি ওজন কমিয়ে নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারবেন না। ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে চাইলে খেতে হবে বুঝে শুনে। এমন খাবার খেতে হবে যা আপনার দেহের জন্য ভালো এবং যা অনেকটা সময় ধরে আপনার ক্ষুধার উদ্রেক করবে না। এতে করে আপনি স্বভাবতই আজেবাজে খাবার কম খাবেন। এতে করে ওজনটা থাকবে নিয়ন্ত্রণে। তাহলে আজ চলুন চিনে নেয়া যাক এমন ৮ টি খাবার যা অনেকটা সময় ধরে পেটে থাকবে এবং ক্ষুধার উদ্রেক করবে না মোটেও।

১) আপেল

একটি মাঝারি আকারের আপেলে রয়েছে ৪.৪ গ্রাম ফাইবার যা অনেকটা সময় ধরে আপনার পেট ভর্তি করে রাখবে, ক্ষুধার উদ্রেক করবে না। আর এর পুষ্টিগুণ তো রয়েছেই যা দেহকে সুস্থ রাখতে সহায়তা করবে।

২) ডাল

মাত্র আধা কাপ ডালে রয়েছে ৮ গ্রাম ফাইবার। এছাড়াও ডালে রয়েছে স্বাস্থ্যকর উদ্ভিজ্জ প্রোটিন। এই দুটো উপাদানই অনেকটা সময় ক্ষুধার উদ্রেক করে না, পেট ভর্তি রাখে।

৩) ওটমিল

ওটমিলে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার। এবং এটি শক্তিবর্ধক খাবার হিসেবেও পরিচিত। তাই সকালে নাস্তায় ১ বাটি ওটমিল অনেকটা সময় ক্ষুধার উদ্রেক করবে না, সেই সাথে পুরো দিন এনার্জি ধরে রাখবে। এছাড়াও ওটমিল দেহের খারাপ কলেস্টোরলের মাত্রা কমাতে সহায়তা করে।

৪) ব্রকলি

মাত্র ১ কাপ সেদ্ধ ব্রকলিতে রয়েছে ৫ গ্রাম ফাইবার যা অনেকটা সময় আপনাকে আজেবাজে খাবার থেকে দূরে রাখবে। এছাড়াও ব্রকলির রয়েছে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট উপাদান এবং ক্যান্সার প্রতিরোধের ক্ষমতা।

৫) কাঠবাদাম

মাত্র আধা কাপ কাঠবাদামে রয়েছে ৯ গ্রাম ফাইবার। এছাড়াও বাদামের ভালো ফ্যাট ও প্রোটিন দেহকে রাখবে সুস্থ নানা রোগ থেকে। তাই যেকোনো আজেবাজে স্ন্যাকস না খেয়ে ১ মুঠো বাদাম খেলে ক্ষুধা কম লাগবে, ওজন নিয়ন্ত্রণে থাকবে এবং স্বাস্থ্য ভালো থাকবে।

৬) পেয়ারা

একটি মাঝারি আকারের পেয়ারাতে রয়েছে প্রায় ৫.৫ গ্রাম ফাইবার। স্ন্যাকস হিসেবে পেয়ারা বেছে নিলে অনায়েসেই অস্বাস্থ্যকর খাবার থেকে দূরে থাকতে পারবেন অনেকটা সময়।

৭) গাজর

বেটা ক্যারোটিন এবং ভিটামিনে ভরপুর গাজরে আরও রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার যা আপনাকে অনেকটা সময় অস্বাস্থ্যকর খাবার থেকে দূরে রাখতে সহায়তা করবে। ওজন নিয়ন্ত্রণ এবং সুস্বাস্থ্য চাইলে গাজর রাখুন খাদ্যতালিকায়।

সূত্রঃ হেলথডাইজেস্ট

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
16 মার্চ 2014 "খাদ্য ও পানীয়" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Sanjoy (2,491 পয়েন্ট)

193,758 টি প্রশ্ন

247,903 টি উত্তর

58,181 টি মন্তব্য

89,015 জন নিবন্ধিত সদস্য



বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
* বিস্ময়ে প্রকাশিত সকল প্রশ্ন বা উত্তরের দায়ভার একান্তই ব্যবহারকারীর নিজের, এক্ষেত্রে কোন প্রশ্নোত্তর কোনভাবেই বিস্ময় এর মতামত নয়।
...