বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
49 জন দেখেছেন
"প্রেম-ভালোবাসা" বিভাগে করেছেন (71 পয়েন্ট)

মেয়েদের সাথে আমি ভালই কথা বলতে পারি কিন্তু মেয়েরা আমার প্রতি কেন  জানি সহজে দুর্বল হয়না তাদের আচরনে  মনে হয় আমাকে ওরা মিস করেনা।  আমি মনে করি আমি ওদের ঘন ঘন কল দেই এইজন্য মনে হয় মেয়েরা আমাকে মিস করেনা আপনাদের মতামত চাই কি করলে মেয়েরা আমাকে সবসময় মিস করবে আর কি করলেইবা একটি মেয়ের মন আমি  সহজে জয় করতে পারি পরামর্শ চাই। 

3 উত্তর

0 টি পছন্দ
করেছেন (1,184 পয়েন্ট)
সব সময় নিজের ব্যক্তিত্ব ধরে রাখার চেষ্টা করেন। আর এমনিতেই কোনো জিনিস না চাইতেই পেলে তার মর্যাদা কমে যায়। যেহেতু আপনি বারবার ফোন দেন তাই হয়তো এসময়ই তাদের প্রয়োজনীয় কথা শেষ হয়, এজন্য আর ফোন করেনা। কিন্তু আপনি ফোন না করলে দেখবেন প্রয়োজন পড়লে এমনিই ফোন করবে অথবা হয়তো মিস করবে। আর সে যদি আপনাকে পছন্দ না করে বা ভালো না বাসে সে অন্য ব্যাপার। 
0 টি পছন্দ
করেছেন (4,044 পয়েন্ট)
আপনি যেটা চাচ্ছেন তা অতটা সহজ নয়।আর কাজটাও ঠিক নয়।যাহোক,আপনি আগেই নিজেকে সস্তা বানিয়ে ফেলেছেন।তাছাড়াও আপনার সম্পর্কে মেয়েদের মধ্যে একটা ধারণা জন্মেছে যে আপনি মেয়েপাগল।প্রথমে আপনাকে তাদের মন থেকে এই ধারণা মুছে ফেলতে হবে।এজন্য আপনার উচিত প্রয়োজন ছাড়া কোন মেয়ের সাথে কথা না বলা এবং প্রয়োজন ছাড়া কোন মেয়েকে ফোন না দেওয়া।বিশেষ প্রয়োজন থাকা সত্ত্বেও কোন মেয়েকে ফোন না দেওয়াটা আরো উত্তম হবে।
এখন আসল প্রশ্নে আসি,আপনাকে তারা মিস করবে কেন?বা কোন সম্পর্কের ভিত্তিতে?
১. ফ্রেন্ড হিসেবে : আপনাকে যদি বিশেষ কোন কাজে প্রয়োজন হয় তবে আপনাকে মিস করবে।তাছাড়াও আড্ডাক্ষেত্রে অনুপস্থিত থাকলে মিস করবে।
২. গার্লফ্রেন্ড হিসেবে : আপনাকে কেউ স্পেশালভাবে পছন্দই করেনি তো মিস করবে কেন।
0 টি পছন্দ
করেছেন (196 পয়েন্ট)
কি করে আপনার কাঙ্খিত নারীর মন জয় করবেন। ১. ভালবাসার প্রথম শর্ত হল প্রিয়মানুষটার কাছে সৎ থাকা। তার কাছে কোনকিছুই গোপন করা যাবে না। ২. প্রিয়তমাকে তার দূর্বলতার কথা তুলে রাগানো যাবে না। ৩. আত্মবিশ্বাসী হতে হবে। মেয়েরা আত্মবিশ্বাসী ও ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন পুরুষদের পছন্দ করে। প্রিয়মানুষের মানসিক ও শারীরিক চাহিদার প্রতি খেয়াল রাখতে হবে। ৪. নিজের অর্থসম্পদের চেয়ে তাকে বেশি ভালবাসতে হবে। প্রত্যেক নারী তার প্রিয়জনের কাছ থেকে সর্বোচ্চ ভালবাসা পেতে চায়। নারী চায় তার প্রিয়মানুষ তার প্রতি যত্মবান হোক। সবকিছুর উর্ধ্বে তাকে দেখুক। ৫. মেয়েরা হাস্য-রস পছন্দ করে। যেসব ছেলেরা তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে হাসি তামাশা করতে পারে, মেয়েরা ঐসব ছেলেদের পছন্দ করে। ৬. মেয়েরা পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা ও ফিটফাট থাকতে পছন্দ করে। মেয়েরা চায় তার ভালোবাসার মানুষটি সব সময় কেতাদুরস্ত থাকুক। ৭. প্রিয়তমাকে প্রশ্ন করার সুযোগ করে দিতে হবে। সে কি জানতে চায় সেদিকে থেয়াল রাখতে হবে। ৮. নিজের পরিবারের সম্পর্কে তার সামনে খোলামেলা আলোচনা করতে হবে। এতে মেয়েরা নিজেদের অনেকটা নিরাপদ মনে করে। ৯. ফেলে আসা জীবনে যেসব মেয়েদের সঙ্গে আপনার প্রেম ছিল। সেসব গল্প নাইবা বললেন আপানার প্রিয়তমাকে। যদি সে কখনো জানতে চায় তবেই বলা যেতে পারে। ১০. মেয়েরা কথার ছলে গল্প বলতে ভালোবাসে। আপনার প্রিয় মানুষটির গাল-গল্পে বিরক্ত হবেন না যেন। তাহলে সে আপনার উপরে চটে যাবে। ১১. প্রিয়তমার সঙ্গে কথা বলার সময় তার চোখের দিকে তাকিয়ে আবেগ প্রকাশ করে কথা বলুন। এতে মেয়েরা খুশি হয়। ১২. আপনার মনে বেদনার পাহাড় জাগতে পা্রে। তাই বলে সবাইকে বলে কয়ে বেড়াবেন এমন নয়। প্রিয় নারীকেও আপনার দুঃখ-কষ্ট বুঝতে দেবেন না। বরং হাসি খুশি থাকুন। ১৩. কথায় বলে প্রকৃতি শুন্যস্থান পছন্দ করে না। তাই যথাসম্ভব প্রিয়জনের কাছাকাছি থাকুন। তাকে ঘনঘন সময় দিন। ১৪. প্রিয়মানুষটির পছন্দ-অপছন্দের প্রতি খেয়াল রাখুন। তার ভালো লাগা, মন্দ লাগার বিষয়গুলো মাথায় রাখুন। ১৫. প্রিয়তমার সঙ্গে কখনো অন্যকোন নারীর তুলনা করবেন না। কোন নারীর তুলনা পছন্দ করেন না। ১৬. অনেকে মনে করেন প্রেমিকার সঙ্গে বন্ধত্ব করা যায় না। কথাটি ভুল। আগে বন্ধুত্ব পরে প্রেম। ১৭. প্রেমিকার বিশ্বাসে কখনো আঘাত করবেন না।তার নিজস্ব চিন্তা-চেতনাকে সম্মান করুন। ১৮. প্রিয়তমার শরীরের মোহে না পরে তার মনের গুরুত্ব দিন। শরীর বৃত্তিয় ভালোবাসা দীর্ঘস্থায়ী হয় না। ভালোবাসুন মনে থেকে। তাহলে শরীর মন দুটোই পাবেন অনায়াসে। ১৯. প্রকৃতিগত ভাবেই নারীরা কোমল। তাই প্রেমিকার সঙ্গে কথা বলার সময় সময় কখনো কঠোর হবে না। কোমল সুরে নারীর সঙ্গে কথা বলুন। ২০. মেয়েরা খুব আবেগ প্রবণ। তারা সব সময় পরিবার-পরিজন নিয়ে থাকতে ভালোবাসে। তাই আপনার প্রিয়মানুষটির পরিবারের প্রতি খেয়াল রাখুন। খোঁজ খবর নিন। মনে রাখবেন ভালোবাসা এমনি এমনি আসে না। ভালোবাসা পেতে হলে আগে ভালোবাসা দিতে হয়। প্রেম-ভালোবাসা হল সুন্দরের আরাধনা। নারীর মন বুঝতে হলে নারীর সঙ্গে ঐ ধরনের আচরন করুন য্টো সে পছন্দ করে। তাহলেই দেখবেন সে আপনার প্রতি ভালোবাসায় বিগলিত হয়ে গেছে।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর

331,939 টি প্রশ্ন

422,808 টি উত্তর

131,362 টি মন্তব্য

181,210 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...